‘মুহাম্মাদকে (সা.) ভালোবাসি’ লেখা মাস্ক পরে সংসদে এমপি

ধর্ম ডেস্ক
ধর্ম ডেস্ক ধর্ম ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৩:০৬ পিএম, ২৬ অক্টোবর ২০২০

ইমান রাহমানি। দক্ষিণ ইউরোপের দেশ কসোভার সংসদ সদস্য। ফ্রান্সের ব্যঙ্গচিত্র প্রচারের প্রতিবাদে তিনি ‘আই লাভ মুহাম্মাদ’ লেখা মাস্ক পরে সংসদের একটি পূর্ণাঙ্গ অধিবেশনে যোগদান করেন। খবর আনাদোলু এজেন্সি।

সেলফ ডিটারমিনেশন মুভমেন্টের সদস্য, কসোভোর জাতীয় সংসদের সদস্য ইমান রাহমানি রোববার (২৫ অক্টোবর) দেশটির একটি পূর্ণাঙ্গ অধিবেশনে বিশেষ প্রতিবাদী মাস্ক পরে অংশগ্রহণ করেন। তাতে লেখা ছিল- ‘আই লাভ মুহাম্মাদ’ তথা আমি মুহাম্মাদ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামকে ভালোবাসি।

কসোভার সংসদ সদস্য ইমান রাহমানি দুইটি কারণে বিশেষ এ মাস্ক ব্যবহার করেছিলেন বলে জানা যায়।

প্রথমত : ফ্রান্সে নিযুক্ত কসোভোর রাষ্ট্রদূত কান্দ্রিম গাশি (Qendrim Gashi) প্রেসিডেন্ট অ্যামানুয়েল ম্যাক্রোর প্রশংসা করেন। যেখানে হজরত মুহাম্মাদুর রাসুলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামকে ব্যঙ্গ করে প্রকাশিত চিত্র দেশটির সরকারি দালানের বাইরে টানানোর ঘোষণা দেন ম্যাক্রো। কান্দ্রিম আর গাশির দেয়া বক্তব্যটি ছিল অনুপযুক্ত। তাই সংসদ সদস্য ইমান রাহমানি প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করেন।

দ্বিতীয়ত : আমরা প্রিয় নবি সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামের জন্মের মাস রবিউল আউয়াল অতিবাহিত করছি।

তিনি এই বার্তাটিসহ বিশেষ লেখা সমৃদ্ধ মাস্ক পরা নিজের একটি ছবি সোশ্যাল মিডিয়ায় পোস্ট করেছেন। এর মাধ্যমে শান্ত ও কোমল প্রতিবাদ প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করেন।

jagonews24

তিনি আরও জানান, আপনারা ক্ষুব্দ হবে না এবং হাসবেন না। কেননা হজরত মুহাম্মাদুর রাসুলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম ছিলেন মানবজাতির জন্য রহমতের বার্তাবাহক।

এদিকে রাষ্ট্রদূত গাশী তার ফেসবুক পেজে জানান, তার অবস্থানের কারণে যারা মনোক্ষুন্ন বা দুঃখ পেয়েছেন, তিনি তাদের প্রতি দুঃখ প্রকাশ করেছেন।

উল্লেখ্য, মুসলিম উম্মাহকে বিপথগামী করতে, বিশ্বের বুকে তাদের মনোবলকে ভেঙে দিতেই বিভিন্ন সময় ফ্রান্সের এ বিতর্কিত ম্যাগাজিন শার্লি হেবদো বিশ্বনবি সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামের একাধিক ব্যঙ্গচিত্র প্রচার করে আসছে। আর দেশটির সরকার তাদের এ কার্যক্রমকে রাষ্ট্রীয়ভাবে স্বীকৃতি দিয়ে পুলিশি পাহারায় তা সরকারি ভবনগুলোতে টানানোর ব্যবস্থা করে দেয়। যা খুবই ন্যক্কারজনক ঘটনা।

এমএমএস/জেআইএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]