বাসের ধাক্কায় বশেমুরবিপ্রবি শিক্ষক নিহত: চালককে গ্রেফতারের দাবি

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি গোপালগঞ্জ
প্রকাশিত: ১০:০৫ পিএম, ১৬ অক্টোবর ২০২১

পিরোজপুরের নাজিরপুরে বাসের ধাক্কায় বুধবার (১৩ অক্টোবর) গোপালগঞ্জের বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (বশেমুরবিপ্রবি) ইংরেজি বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক কাজী মশিউর রহমান রাজিব (৪০) নিহত হন। সেই বাসের চালকের গ্রেফতার ও বিচার দাবিতে মানববন্ধন করেছেন বিশ্ববিদ্যালয়টির শিক্ষার্থীরা।

শনিবার (১৬ অক্টোবর) গোপালগঞ্জের ঘোনাপাড়ায় ঢাকা-খুলনা মহাসড়কের পাশে সকাল ১১টার দিকে এ মানববন্ধন করেন তারা।

এসময় শিক্ষার্থীরা বলেন, আমরা শান্তিপূর্ণ মানববন্ধন করছি। আমরা চাই, খুনি চালককে দ্রুত গ্রেফতার করে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির আওতায় আনা হোক। আমরা নিরব আছি, এটা যেনো কেউ আমাদের দুর্বলতা না ভাবে।

মানববন্ধনে বিশ্ববিদ্যালয়ের আন্তর্জাতিক সম্পর্ক বিভাগের শিক্ষার্থী অভি বলেন, আগামী ৩ দিনের মধ্যে যদি ঘাতক চালককে গ্রেফতার করা না হয়, তাহলে আমরা আমাদের কর্মসূচি চালিয়ে যাবো। প্রয়োজন হলে আমরণ অনশনে বসবো। আমাদের একটাই দাবি, খুনির দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি।

এসময় শিক্ষার্থীদের সঙ্গে একাত্মতা প্রকাশ করে বিশ্ববিদ্যালয়ের ইংরেজি বিভাগের সহকারী অধ্যাপক হাবিবুর রহমান বলেন, আমরা এই হত্যাকাণ্ডের বিচার চাই। আমাদের সহকর্মী হত্যার বিচার না হলে এই বিশ্ববিদ্যালয়ের সঙ্গে অবিচার করা হবে।

তিনি আরও বলেন, সড়কের সব ধরনের দুর্বৃত্তদের বিচারের আওতায় আনা হোক। সড়ক নিয়ম-শৃঙ্খলা এবং আইনের মধ্যে চলে আসুক।

১৩ অক্টোবর বিকেল সাড়ে ৫টার দিকে কাজী মসিউর রহমান রাজিব তার স্ত্রী ও শিশুপুত্রকে নিয়ে অটোরিকশায় করে পিরোজপুর থেকে গোপালগঞ্জের দিকে যাচ্ছিলেন।এ সময় নাজিরপুরের কবিরাজবাড়ি এলাকায় ইমাদ পরিবহনের একটি বাস তাদের ধাক্কা দেয়। এতে তিনিসহ তার স্ত্রী-পুত্র ও অটোচালক গুরুতর আহত হন।

সন্ধ্যায় তাদের উন্নত চিকিৎসার জন্য খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়ার পথে রাজিবের মৃত্যু হয় এবং হাসপাতালে নেওয়ার পর অটোচালক রাকিবের মৃত্যু হয়।

মেহেদী হাসান/ইউএইচ/জেআইএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]