বাগেরহাটে বিএনপির ৭ নেতাসহ গ্রেফতার ৫৪

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি বাগেরহাট
প্রকাশিত: ০৬:৩৪ পিএম, ০৬ ফেব্রুয়ারি ২০১৮

বাগেরহাটে অভিযান চালিয়ে বিএনপির সাত নেতাকর্মীসহ ৫৪ জনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। গত ২৪ ঘণ্টায় বাগেরহাটের বিভিন্ন উপজেলায় অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেফতার করা হয়।

জেলা বিএনপির দাবি, দলের নেতাকর্মীদের রাজপথ ছাড়া করতে ও তাদের মধ্যে আতঙ্ক ছড়াতে পুলিশ বাড়ি বাড়ি হানা দিয়ে এ গ্রেফতার করছে। মঙ্গলবার দুপুরে তাদের আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

গ্রেফতারকৃতরা হলেন- বাগেরহাটের চিতলমারী উপজেলা বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক সফিকুল ইসলাম বাবু, বিএনপি নেতা মোক্তার হোসেন, মংলার পৌর যুবদলের সভাপতি ও সাবেক পৌর কাউন্সিলর মো. এমরান হোসেন, কচুয়া উপজেলার গোপালপুর ইউনিয়ন বিএনপির সাধারণ সম্পাদক আতিয়ার রহমান সিকদার, রামপাল উপজেলা ছাত্রদল নেতা শোভন ইসলামসহ সাতজন।

বাগেরহাট জেলা বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক মোজাফফর রহমান আলম অভিযোগ করে বলেন, আগামী ৮ ফেব্রুয়ারি দলের চেয়ারপার্সন বেগম খালেদা জিয়ার মামলার রায়কে ঘিরে দলের নেতাকর্মীরা যখন উজ্জীবিত হয়ে রাজপথে আন্দোলনের প্রস্তুতি নিচ্ছে। ঠিক তখনই পুলিশ আওয়ামী লীগ সরকারকে খুশি করতে বাগেরহাট জেলার বিভিন্ন ইউনিটের সক্রিয় নেতাকর্মীদের গ্রেফতার করছে।

দলের নেতাকর্মীদের রাজপথ ছাড়া করতে ও তাদের মধ্যে আতঙ্ক ছড়াতে পুলিশ বাড়ি বাড়ি হানা দিয়ে তাদের গ্রেফতার করছে বলে অভিযোগ এ বিএনপি নেতার।

বিএনপির অভিযোগ অস্বীকার করে বাগেরহাটের পুলিশ সুপার পংকজ চন্দ্র রায় বলেন, বিস্ফোরকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইন ও নাশকতার পরিকল্পনার অভিযোগে বিএনপি সাতজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। এছাড়া নিয়মিত ও অনিয়মিত মামলায় গ্রেফতারি পরোয়ানাভুক্ত ৪৭ জনকে পুলিশ গ্রেফতার করেছে। তবে পুলিশ কাউকে হয়রানি করতে গ্রেফতার করছে না বলে দাবি করেন পুলিশ সুপার।

শওকত আলী বাবু/এএম/এমএস

আপনার মতামত লিখুন :