সুন্দরগঞ্জের নির্বাচনে এগিয়ে জাপা প্রার্থী

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি গাইবান্ধা
প্রকাশিত: ০৭:৪৯ পিএম, ১৩ মার্চ ২০১৮ | আপডেট: ০৭:৪৯ পিএম, ১৩ মার্চ ২০১৮

গাইবান্ধা-১ (সুন্দরগঞ্জ) আসনে উপ-নির্বাচনের ফলাফলে এগিয়ে রয়েছেন লাঙল প্রতীকের প্রার্থী ব্যারিস্টার শামীম হায়দার পাটোয়ারী। এই নির্বাচনে মূল প্রতিদ্বন্দ্বিতা হচ্ছে নৌকা ও লাঙল প্রতীকের প্রার্থীর মধ্যে।

উপ-নির্বাচনে ১০৯টি কেন্দ্রের মধ্যে প্রকাশিত ৫০টি কেন্দ্রের ফলাফলে জাতীয় পার্টি (জাপা) সমর্থিত প্রার্থী ব্যারিস্টার শামীম হায়দার পাটোয়ারী পেয়েছেন ৩৭ হাজার ৩৪৬ ভোট ও আওয়ামী লীগ সমর্থিত প্রার্থী আফরুজা বারী পেয়েছেন ২৯ হাজার ৩৮৩ ভোট।

এছাড়া গণফ্রন্টের শরিফুল ইসলাম (মাছ প্রতীক) পেয়েছেন ৪১৫ ভোট ও ন্যাশনাল পিপলস পার্টির (এনপিপি) জিয়া জামান খান (আম প্রতীক) পেয়েছেন ২২১ ভোট।

মঙ্গলবার সকাল ৮টা থেকে ভোটগ্রহণ শুরু হয়ে একটানা চলে বিকেল ৪টা পর্যন্ত। এ নির্বাচনে ১০৯টি কেন্দ্রে ভোটগ্রহণ করা হয়। সুন্দরগঞ্জ উপজেলার ১টি পৌরসভা ও ১৫টি ইউনিয়নে ভোটার রয়েছেন ৩ লাখ ৩৮ হাজার ৫৫৬ জন।

উল্লেখ্য, ২০১৬ সালের ৩১ ডিসেম্বর সরকারদলীয় সংসদ সদস্য ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মনজুরুল ইসলাম লিটন দুর্বৃত্তের গুলিতে নিহত হলে গাইবান্ধা-১ (সুন্দরগঞ্জ) আসনটি শূন্য হয়।

২০১৭ সালের ২২ মার্চ উপ-নির্বাচনে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন নিয়ে জয়লাভ করেন উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক গোলাম মোস্তফা আহমেদ। তিনিও সড়ক দুর্ঘটনায় গুরুতর আহত হয়ে এক মাস ঢাকায় চিকিৎসাধীন থাকার পর গত বছরের ১৯ ডিসেম্বর মারা যান। ফলে আসনটি আবারও শূন্য হয়।

রওশন আলম পাপুল/এএম/এমএস