দুলাভাইয়ের দেয়া ওষুধে শ্যালিকা অচেতন, রাতে গণধর্ষণ

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি গাজীপুর
প্রকাশিত: ০৮:০৮ পিএম, ১১ জুলাই ২০১৮
প্রতীকী ছবি

গাজীপুর মহানগরীর টেকনগপাড়া এলাকায় গভীর রাতে বাড়িতে ঢুকে পঞ্চম শ্রেণির এক ছাত্রীকে (১২) গণধর্ষণ করেছে তিনজন মাদকাসক্ত। এ ঘটনার পর রক্তাক্ত অবস্থায় ওই ছাত্রীকে শহীদ তাজউদ্দিন আহমদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। ঘটনাটি গত সোমবার রাতে হলেও ওই তিন জনের নামে মামলা হয়েছে বুধবার দুপুরে।

ওই কিশোরীর মা জানান, তার স্বামী রিকশাচালান। তার মেয়ে স্থানীয় স্কুলে ৫ম শ্রেণিতে পড়ে। সোমবার রাতে তার মাথা ব্যথা শুরু হলে বড় মেয়ের জামাতাকে ওষুধ আনতে পাঠান। পথে স্থানীয় হাবিব (৩৫), রবিউল (৩০) ও সজিবের (৩২) সঙ্গে তার জামাতার দেখা হলে তারা জানতে চায় কোথায় যাচ্ছেন? ওই কিশোরীর দুলাভাই তাদের জানান, শ্যালিকার মাথা ব্যথার ওষুধ কিনতে।

এসময় তারা জানায়, তাদের কাছে ওষুধ আছে। পরে তাদের দেয়া ওষুধ খাওয়ার পর অচেতন হয়ে ঘুমিয়ে পড়ে ওই কিশোরী। পরে রাত তিনটার দিকে ওই তিন যুবক ঘরের বেড়া কেটে ভেতরে প্রবেশ করে কিশোরীকে বাইরে নিয়ে গণধর্ষণ করে। এক পর্যায়ে সে চিৎকার দিলে তাকে ফেলে পালিয়ে যায় ওরা। মঙ্গলবার ভোরে তাকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

তিনি আরও জানান, ধর্ষকরা মাদকাসক্ত। ঘটনার পর থেকে তারা বিষয়টি প্রকাশ না করতে এবং পুলিশকে না জানাতে হুমকি দিয়ে আসছে। এ ঘটনায় তিনি বাদী হয়ে বুধবার জয়দেবপুর থানায় ওই তিন লম্পটকে আসামি করে মামলা করেছেন।

জয়দেবপুর থানা পুলিশের ওসি আমিনুল ইসলাম জানান, প্রাথমিক তদন্তে অভিযোগের সত্যতা পাওয়া গেছে। আসামিদের ধরতে অভিযান চালানো হচ্ছে।

আমিনুল ইসলাম/এমএএস/এমএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]