পাবনায় শিক্ষককে মারধরের ঘটনায় মামলা, গ্রেফতার ২

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি পাবনা
প্রকাশিত: ১১:৪৩ এএম, ১৬ মে ২০১৯

নকল করতে না দেয়ায় পাবনা শহীদ সরকারি বুলবুল কলেজের শিক্ষককে মারধরেরর ঘটনায় দুই শিক্ষার্থীকে গ্রেফতার করেছে সদর থানা পুলিশ। বৃহস্পতিবার ভোরে নিজ নিজ বাড়ি থেকে অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেফতার করে পুলিশ।

গ্রেফতাররা হলেন- কলেজের হিসাববিজ্ঞান বিভাগের অনার্স শেষ বর্ষের ছাত্র সজল ইসলাম ও দ্বাদশ শ্রেণির ছাত্র সাফিন।

এর আগে বুধবার রাতে ওই কলেজের অধ্যক্ষ প্রফেসর আব্দুল কুদ্দুস বাদী হয়ে সজল ইসলাম ও সাফিনসহ অজ্ঞাতনামা ৩-৪ জনকে আসামি করে মামলা করেন।

তবে লাঞ্ছিত শিক্ষক মো. মাসুদুর রহমান জানান, রাজনৈতিক চাপে অধ্যক্ষ ঘটনার মূল নায়ক সরকারি শহীদ বুলবুল কলেজ ছাত্রলীগের সভাপতি মো. শামসুদ্দিন আহমেদ জন্নুনকে মামলা থেকে বাদ দিয়েছেন।

পাবনা সদর থানা পুলিশের ওসি (তদন্ত) আসাদুজ্জামান মামলা ও গ্রেফতারের বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, সকালে গ্রেফতারদের আদালতের মাধ্যমে কারাকারে পাঠানো হয়েছে।

এদিকে বুধবার রাতে পাবনা জেলা শাখার বিসিএস শিক্ষক সমিতি শহীদ বুলবুল কলেজে জরুরি প্রতিবাদ সভা করেন। সভায় এ ঘটনায় মামলা ও বৃহস্পতিবার দুপুর ২টায় জেলা প্রেস ক্লাবের সামনে আসামিদের গ্রেফতার ও শাস্তির দাবিতে মানববন্ধনের সিদ্ধান্ত নেয়া হয়।

প্রসঙ্গত পরীক্ষার হলে নকলের সুযোগ না দেয়ায় পাবনার সরকারি শহীদ বুলবুল কলেজে বাংলা বিভাগের প্রভাষক মো. মাসুদুর রহমানকে মারধরের ঘটনা ঘটেছে।

৩৬তম বিসিএসে শিক্ষা ক্যাডার এ প্রভাষককে কিল, ঘুষি ও লাথি মেরে চরমভাবে আহত করা হয়। ১২ মে এ ঘটনা ঘটলেও কলেজের সিসি ক্যামেরার ভিডিও ফুটেজ ফেসবুকে ভাইরাল হলে বিষয়টি মঙ্গলবার রাতে জানাজানি হয়।

একে জামান/এফএ/জেআইএম

আপনার মতামত লিখুন :