আদালতে মাকে ৫ টুকরো করে হত্যার বর্ণনা দিল ছেলে

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি নোয়াখালী
প্রকাশিত: ০৯:৪০ পিএম, ২২ অক্টোবর ২০২০

নোয়াখালীর সুবর্ণচর উপজেলার চরজব্বর ইউনিয়নে নুরজাহান বেগমকে (৪২) পাঁচ টুকরো করে হত্যার ঘটনায় তার ছেলে হুমায়ুন কবিরসহ দুইজন নিজেদের দোষ স্বীকার করে আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছেন।

বৃহস্পতিবার (২২ অক্টোবর) বিকেলে নোয়াখালী চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্টেট্র আদালতে হুমায়ুন কবির ও তার মামাতো বোনের স্বামী সুমন স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দেন। এ সময় তারা আদালতে হত্যাকাণ্ডের বর্ণনা দেন। সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট এ এস মোসলেহ উদ্দিন মিজান জবানবন্দি রেকর্ড করে তাদের কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেন।

এছাড়াও মামলার এজাহারভুক্ত চার নম্বর আসামি কালাম ওরফে মামুনের রিমান্ড শুনানির জন্য আগামী ২৫ অক্টোবর দিন ধার্য করা হয়েছে। এর আগে এই মামলার অপর দুই আসামি নিরব ও কসাই নুর ইসলাম আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দেন। এ নিয়ে এ মামলায় মোট চারজন জবানবন্দি দিলেন। মামলাটি বর্তমানে জেলা গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি) তদন্ত করছেন।

গত ৭ অক্টোবর ছেলে হুমায়ুন কবিরসহ তার আরও ছয় সহযোগী মা নুরজাহান বেগমকে নৃশংসভাবে হত্যা করে পাঁচ টুকরো করে পাওনাদারদের ধানক্ষেতে ছড়িয়ে ছিটিয়ে রাখে। এ ঘটনায় প্রথমে নিহতের ছেলে হুমায়ুন কবির বাদী হয়ে থানায় একটি মামলা দায়ের করে। মামলার সূত্র ধরে সুবর্ণচর থানা পুলিশের ওসি (তদন্ত ) ইব্রাহিম খলিল তদন্তে নামলে হত্যার সঙ্গে সরাসরি ছেলে হুমায়ুনের জড়িত থাকার বিষয়টি উঠে আসে। পরে পুলিশ ঘটনার রহস্য উদ্ঘাটন করে।

মিজানুর রহমান/আরএআর/জেআইএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]