চাঁদপুরে ৭ ইউপিতে বিজয়ী স্বতন্ত্র প্রার্থী, ৫টিতে নৌকার জয়

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি চাঁদপুর
প্রকাশিত: ০৬:০৪ এএম, ২৯ নভেম্বর ২০২১
চাঁদপুরে বিভিন্ন ইউপিতে চেয়ারম্যান পদে বিজয়ীরা। ছবি: সংগৃহীত

চাঁদপুরের মতলব উত্তর ও দক্ষিণ উপজেলার ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে ১০ ইউনিয়নে আওয়ামী লীগ মনোনীত নৌকা প্রতীকের প্রার্থীরা বিজয়ী হয়েছেন। তাদের মধ্যে পাঁচজন ভোটে এবং পাঁচজন বিনাপ্রতিদ্বন্দ্বীতায় জয়ী হয়েছেন। তবে বাকি সাতটি ইউনিয়নে ভোট করেই জিতেছেন স্বতন্ত্র প্রার্থীরা।

রোববার (২৮ নভেম্বর) দিনব্যাপী এই দুই উপজেলার ১৭টি ইউনিয়নে ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হয়। দু-একটি কেন্দ্রে বিচ্ছিন্ন ঘটনার খবর পাওয়া গেলেও শেষপর্যন্ত শান্তিপূর্ণভাবেই ভোটগ্রহণ শেষ হয়।

গণনা শেষে রাতে বিজয়ী প্রার্থীদের নাম ঘোষণা করা হয়। বিজয়ীদের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা মোহাম্মদ তোফায়েল হোসেন।

তার দেওয়া তথ্যমতে, মতলব উত্তর উপজেলার ৯ ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে ছয়টিতেই স্বতন্ত্র প্রাথীরা বিজয়ী হয়েছেন। তিনটি ইউনিয়নে নৌকার প্রার্থী বিজয়ী হন। এ উপজেলার বাকি চার ইউনিয়নে আওয়ামী লীগ মনোনীত নৌকা প্রতীকের প্রার্থীরা বিনাপ্রতিদ্বন্দ্বীতায় নির্বাচিত হয়েছেন।

এছাড়া মতলব দক্ষিণ উপজেলার তিন ইউনিয়নে মধ্যে দুটিতে নৌকা ও একটি ইউনিয়নে স্বতন্ত্র প্রার্থী বিজয়ী হয়েছেন। অন্য আরেকটি ইউনিয়নে নৌকা প্রতীকের প্রার্থী বিনাপ্রতিদ্বন্দ্বীতায় বিজয়ী হন।

নির্বাচন অফিসের তথ্যমতে, ষাটনল ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে বেসরকারিভাবে বিজয়ী হয়েছেন স্বতন্ত্র প্রার্থী ফেরদাউস আলম সরকার। তিনি পেয়েছেন ৫ হাজার ১৮৩ ভোট। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী নৌকা প্রতীকের প্রার্থী এ কে এম শরীফ উল্লাহ সরকার পেয়েছেন ৪ হাজার ৮৯৩ ভোট।

সাদুল্যাপুরে বিজয়ী হয়েছেন স্বতন্ত্র প্রার্থী জেবায়ের আজিম স্বপন পাঠান। তিনি পেয়েছেন ৫ হাজার ৫১১ ভোট। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী আওয়ামী লীগ মনোনীত নৌকা প্রতীকের প্রার্থী ও বর্তমান চেয়ারম্যান লোকমান আহমেদ মুন্সী পেয়েছেন ৪ হাজার ৮১১ ভোট।

বাগানবাড়ি ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে বেসরকারিভাবে নির্বাচিত হয়েছেন স্বতন্ত্র প্রার্থী আব্দুল্লাহ আল মামুন। তিনি পেয়েছেন ৫ হাজার ৯৯৫ ভোট। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী আওয়ামী লীগ মনোনীত চেয়ারম্যান প্রার্থী যুদ্ধাহত বীর মুক্তিযোদ্ধা মো. নান্নু মিয়া পেয়েছেন ৪ হাজার ৪৫১ ভোট।

কলাকান্দা ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে বেসরকারিভাবে বিজয়ী হয়েছেন স্বতন্ত্র প্রার্থী ও বর্তমান চেয়ারম্যান ছোবহান সরকার সুভা। তিনি পেয়েছেন ৩ হাজার ৭৯৪ ভোট। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী নৌকা প্রতীকের প্রার্থী গোলাম কাদির পেয়েছেন ২ হাজার ৭২৬ ভোট।

গজরা ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে বেসরকারিভাবে বিজয়ী হয়েছেন আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী শহিদউল্লাহ প্রধান। তিনি পেয়েছেন ৫ হাজার ৬১২ ভোট। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী স্বতন্ত্র প্রার্থী মফিজুল ইসলাম পেয়েছেন ৭৯৪ ভোট।

সুলতানাবাদ ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে বেসরকারিভাবে নির্বাচিত হয়েছেন স্বতন্ত্র প্রার্থী আবু বক্কর সিদ্দিক খোকন। তিনি মোট ৪৩৬৮ ভোট পেয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী নৌকার প্রার্থী হাবীবা ইসলাম সিফাত পেয়েছেন ৪ হাজার ৬৯ ভোট।

ফতেপুর পূর্ব ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে বেসরকারিভাবে বিজয়ী হয়েছেন নৌকার প্রার্থী ও বর্তমান চেয়ারম্যান আজমল হোসেন চৌধুরী। তিনি পেয়েছন ৬ হাজার ৪৬৫ ভোট। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী স্বতন্ত্র প্রার্থী নুরুল ইসলাম পাটোয়ারী পেয়েছেন ৪ হাজার ৪৪৮ ভোট।

ফরাজীকান্দি ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে বেসরকারিভাবে নির্বাচিত হয়েছেন নৌকার প্রার্থী ইঞ্জিনিয়ার রেজাউল করীম। তিনি মোট ১১ হাজার ৬০০ ভোট পেয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী স্বতন্ত্র প্রার্থী ও বর্তমান চেয়ারম্যান দেলোয়ার হোসেন দানেশ পেয়েছেন ৪ হাজার ৬১৭

এখলাছপুর ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে বেসরকারিভাবে বিজয়ী হয়েছেন স্বতন্ত্র প্রার্থী মফিজুল ইসলাম ঢালী মুন্না। তিনি মোট ৩ হাজার ১৯৭ ভোট পেয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী নৌকার প্রার্থী অ্যাডভোকেট জসিম উদ্দিন পেয়েছেন ৩ হাজার ৭৮ ভোট। ১১৯ ভোটে হেরে জসিমন উদ্দিন পুনরায় ভোট গণনার জন্য আবেদন করেছেন।

অন্যদিকে, মতলব দক্ষিণ উপজেলার ১নং নায়েরগাও উত্তর ইউনিয়নে বিজয়ী হয়েছেন ঘোড়া প্রতীকের স্বতন্ত্র চেয়ারম্যান প্রার্থী কামরুজ্জামান। তিনি ভোট পেয়েছেন ৪ হাজার ৭৯৭। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী মিজানুর রহমান সেলিম পেয়েছেন ৪ হাজার ৪৮০ ভোট।

মতলব দক্ষিণ উপজেলার ২নং নায়েরগাও দক্ষিণ ইউনিয়নে বিজয়ী হয়েছেন নৌকা প্রতীকের চেয়ারম্যান প্রার্থী আব্দুস সালাম মামুন মৃধা। তিনি মোট ৬ হাজার ৪৪৪ ভোট পেয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী ঘোড়া প্রতীকের প্রার্থী নাসির আহমেদ অরুন পেয়েছেন ৩ হাজার ৫৯ ভোট।

উপাধি দক্ষিণ ইউনিয়নের বেসরকারিভাবে বিজয়ী হয়েছেন আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী গোলাম মোস্তফা। তিনি মোট ৫ হাজার ৩৩০ ভোট পেয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী স্বতন্ত্র প্রার্থী ইউসুফ পাটোয়ারী পেয়েছেন ৪ হাজার ৭৪০ ভোট।

বিনাপ্রতিদ্বন্দ্বীতায় নির্বাচিত পাঁচ চেয়ারম্যান
মোহনপুর ইউনিয়নে নৌকা প্রতীকের সামছুল হক চৌধুরী বাবুল, ফতেপুর পশ্চিম ইউনিয়নে নৌকা প্রতীকের প্রার্থী নূর মোহাম্মদ, ইসলামাবাদ ইউনিয়নে নৌকা প্রতীকের প্রার্থী সাখাওয়াত হোসেন মুকুল, দূর্গাপুর ইউনিয়নে নৌকা প্রতীকের প্রার্থী মোকাররম হোসেন খান ওপেল, উপাধি উত্তর ইউনিয়নে নৌকা প্রতীকের প্রার্থী শহীদ প্রধান বিনা প্রতিদ্বন্দ্বীতায় জয়ী হয়েছেন।

নজরুল ইসলাম আতিক/এএএইচ

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]