ইউপি চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে ৯ সদস্যের অভিযোগ

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি সিরাজগঞ্জ
প্রকাশিত: ১১:৩৭ এএম, ০৮ ডিসেম্বর ২০২২
ইউপি চেয়ারম্যান হাবিলুর রহমান হাবিব

সিরাজগঞ্জের তাড়াশ উপজেলার মাধাইনগর ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) চেয়ারম্যান হাবিলুর রহমান হাবিবের বিরুদ্ধে অনিয়ম, দুর্নীতি ও অর্থআত্মসাতের অভিযোগ উঠেছে।

এমন অভিযোগে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মেজবাউল করিম বরাবর লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন ইউনিয়ন পরিষদের ৯ সদস্য। তদন্ত সাপেক্ষে চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা নেওয়ার আহ্বান জানান তারা।

বৃহস্পতিবার (৮ ডিসেম্বর) সকালে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মেজবাউল করিম অভিযোগ পাওয়ার বিষয়টি জাগো নিউজকে নিশ্চিত করেছেন। তিনি বলেন, অভিযোগের আলোকে বিষয়টি তদন্ত করে দেখা হবে।

অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান সদস্যদের ক্ষমতা খর্ব করে স্বেচ্ছাচারিতার করে পরিষদ চালাচ্ছেন। ক্ষমতার অপব্যবহার করে বিভিন্ন প্রকল্পের টাকা আত্মসাৎ ও প্রকল্পে অনিয়ম, ইউপি সদস্যদের হুমকি-ধামকি, পরিষদের নীতিমালা না মানা, মাসিক মিটিং না করা, পরিষদের বাৎসরিক হিসাব এবং সম্মানি ভাতা পরিশোধ না করারও অভিযোগ করেছেন ওই ৯ ইউপি সদস্য।

অভিযোগে আরও বলা হয়েছে, ইউনিয়নের বিভিন্ন উন্নয়নমূলক কাজের অর্থ লোপাট ও টাকার বিনিময়ে বিভিন্ন ভাতার কার্ড দিয়েছেন চেয়ারম্যান। এছাড়া পরিষদের বরাদ্দ টিআর, কাবিটার অধিকাংশ টাকা কাজ না করেই আত্মসাৎ করেছেন তিনি। পাশাপাশি চলমান অতিদরিদ্রদের কর্মসংস্থান কর্মসূচি (ইজিপিপি) প্রকল্পের কাজ দেওয়ার নাম করে শ্রমিকদের কাছ থেকে চার হাজার থেকে পাঁচ হাজার টাকা অগ্রিম ঘুস আদায় করেছেন চেয়ারম্যান হাবিলুর।

অভিযোগকারী ৯ ইউপি সদস্য হলেন, মোক্তার হোসেন, শ্রী মিলন চন্দ্র সরকার, শফিকুল ইসলাম, রফিকুল ইসলাম, আল-আমিন, শাহিনা খাতুন, আব্দুল মান্নান, আব্দুল কাশেম ও চায়না খাতুন।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে মাধাইনগর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান হাবিলুর রহমান হাবিব তার বিরুদ্ধে আনা অভিযোগ অস্বীকার করে জাগো নিউজকে বলেন, ইউপি সদস্যরা আমার বিরুদ্ধে মিথ্যা মনগড়া অভিযোগ দিয়েছে। আমি কোনো কাজে অনিয়ম করিনি। তারা তাদের ভাগবাটোয়ারা নিয়ে এগুলো করছে।

এমআরআর/এএসএম

পাঠকপ্রিয় অনলাইন নিউজ পোর্টাল জাগোনিউজ২৪.কমে লিখতে পারেন আপনিও। লেখার বিষয় ফিচার, ভ্রমণ, লাইফস্টাইল, ক্যারিয়ার, তথ্যপ্রযুক্তি, কৃষি ও প্রকৃতি। আজই আপনার লেখাটি পাঠিয়ে দিন [email protected] ঠিকানায়।