ইংরেজি পরীক্ষায় শিক্ষক-শিক্ষার্থী বহিষ্কারের রেকর্ড

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৯:০৭ পিএম, ০৫ ফেব্রুয়ারি ২০১৮ | আপডেট: ০৯:১১ পিএম, ০৫ ফেব্রুয়ারি ২০১৮
ফাইল ছবি

প্রশ্নফাঁস অভিযোগের মধ্যদিয়ে শেষ হয়েছে মাধ্যমিক স্কুল সার্টিফিকেট (এসএসসি) ও সমমান পরীক্ষার চতুর্থ দিনের পরীক্ষা। আজ ছিল ইংরেজি প্রথম পত্রের পরীক্ষা। এ পরীক্ষায় বহিষ্কার ও অনুপস্থিতি ছিল রেকর্ডসংখ্যক। এ দিন পরীক্ষার্থী অনুপস্থিতির সংখ্যা প্রায় ১০ হাজার। অনৈতিক কাজের জন্য ১৩২ জনকে বহিষ্কার করা হয়েছে। তাদের মধ্যে চারজন শিক্ষকও রয়েছে। শিক্ষা মন্ত্রণালয় সূত্রে এ জানা গেছে।

মন্ত্রণালয়ের তথ্যমতে, সোমবার এসএসসির সাধারণ আট বোর্ডের ইংরেজি (আবশ্যিক) প্রথম পত্র, মাদরাসা বোর্ডে ফিকহ ও উসূল-ই-ফিকহ্, আকাইদ ও ফিকহ এবং কারিগরি শিক্ষা বোর্ডের অধীনে গণিত দ্বিতীয় পত্রের পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়। সকাল ১০টা থেকে দুপুর ১টা ও দুপুর ২টা থেকে ৫টা পর্যন্ত দুই ধাপে পরীক্ষা আয়োজন করা হয়।

পরীক্ষা নিয়ন্ত্রণ কক্ষ থেকে জানা গেছে, সাধারণ আট বোর্ডের মধ্যে ঢাকা বোর্ডে অনুপস্থিতির সংখ্যা ছিল সবচেয়ে বেশি। এ বোর্ডে এক হাজার ৬৯৯ জন পরীক্ষার্থী অনুপস্থিত ছিল। অসাধুপথ অবলম্বনের জন্য ৩৮ জনকে বহিষ্কার করা হয়েছে। দ্বিতীয় অবস্থানে রয়েছে যশোর বোর্ড। ইংরেজি প্রথম পত্র পরীক্ষায় এ বোর্ডে অনুপস্থিতির সংখ্যা ছিল ৬৬১ জন। বহিষ্কার করা হয়েছে চারজন পরীক্ষার্থীকে। অনুপস্থিতির তৃতীয় অবস্থানে রাজশাহী বোর্ডে ৬২৪ জন। বহিষ্কার করা হয়েছে চারজন পরীক্ষার্থী ও এবার এসএসসি পরীক্ষায় এ বোর্ডে প্রথমবারের মতো তিন জন শিক্ষককে বহিষ্কার করা হয়েছে।

অন্যদিকে, ইংরেজি প্রথম পত্র পরীক্ষায় চট্টগ্রাম বোর্ডে অনুপস্থিতির সংখ্যা ৪৪৯ জন, বহিষ্কার হয়েছে চারজন শিক্ষার্থী, দিনাজপুর বোর্ডে অনুপস্থিতির সংখ্যা ৪৪০ জন ও বহিষ্কার চারজন পরীক্ষার্থী, কুমিল্লা বোর্ডে অনুপস্থিতি ৪০৫ জন ও বহিষ্কার চারজন, বরিশাল বোর্ডে অনুপস্থিতি ৩৪৬ জন ও বহিষ্কার ১৬ জন শিক্ষার্থী এবং সিলেট বোর্ডে অনুপস্থিতি ছিল ৩৩৫ জন ও শিক্ষার্থী বহিষ্কারের সংখ্যা একজন।

মাদরাসা বোর্ডে ৩ হাজার ২৪৯ জন পরীক্ষার্থী অনুপস্থিত ও ২০ জন শিক্ষার্থীকে বহিষ্কার এবং কারিগরি শিক্ষা বোর্ডে ১ হাজার ৪৩৬ জন অনুপস্থিতি এবং ৩৪ জন শিক্ষার্থীকে অসাধু পন্থা অবলম্বনের জন্য বহিষ্কার করা হয়েছে।

উল্লেখ, ১ ফেব্রুয়ারি থেকে শুরু হয়েছে এসএসসি ও সমমান পরীক্ষা। এবার সারা দেশে ৩ হাজার ৪১২টি কেন্দ্রে ২৮ হাজার ৫১৫টি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীরা পরীক্ষা দিচ্ছে। গত বছরের চেয়ে এবার ২০৭টি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান এবং ১৭৬টি কেন্দ্র বেড়েছে। এছাড়াও বিদেশের ৭টি কেন্দ্রে ২৯৬ জন শিক্ষার্থী পরীক্ষায় অংশ নিচ্ছে। এর মধ্যে ২১২ জন ছাত্র এবং ২৪৬ জন ছাত্রী রয়েছে।

এমএইচএম/জেএইচ/আইআই