২৭ স্ত্রী ও ১৫০ সন্তান নিয়ে সংসার

ফিচার ডেস্ক
ফিচার ডেস্ক ফিচার ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৩:৩০ পিএম, ০৩ অক্টোবর ২০২১

বিশ্বের সবচেয়ে বড় পরিবার ও বেশি সংখ্যক স্ত্রী আছে এমন ব্যক্তির তালিকায় জায়গা করে নিয়েছেন কানাডার বাউন্টিফুলের উইনস্টন ব্ল্যাকমোর। ৬৫ বছরের এই খ্রিস্টান ধর্মযাজকের ঘরে আছেন ২৭ জন স্ত্রী ও ১৫০ সন্তান।

সম্প্রতি তার এক কন্যা মারলিন ব্ল্যাকমোর নিজ জীবনের কাহিনী ভাগাভাগি করে নিয়েছেন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে। বর্তমানে মারলিনের বয়স ২১ বছর। তিনি এমন এক পরিবারে বড় হয়েছেন যেখানকার পরিবেশ সম্পূর্ণই আলাদা, এমনটিই জানিয়েছেন মারলিন।

jagonews24

মারলিন তার টিকটক অ্যাকাউন্টে একটি ভিডিও পোস্ট করে জানান, ‘নিজের পরিচয় সব সময় আমি গোপন করে এসেছি। তবে আর কতদিন লুকিয়ে রাখব! নিজের জীবনের কাহিনী সবার সঙ্গে ভাগাভাগি করে নিতে চাই।’

বর্তমানে মারলিন যুক্তরাষ্ট্রে থাকেন। মারলিন জানান, ‘ছোটবেলা থেকেই মায়ের আদর পাইনি। এতো বড় পরিবার থাকা স্বত্ত্বেও বাবার নির্দেশে আমরা সব ভাই ও বোনেরা একটি ‘মোটেল হাউসে’ বসবাস করতাম। সেখানে ক্যাটাগরি করে বোনদের ও ভাইদের আলাদাভাবে রাখা হয়েছিল।’

jagonews24

মারলিন তার ১৪৯ ভাইবোনের নাম একসঙ্গে মনে রাখতে না পারলেও তাদের চেহারা দেখলে নাম মনে পড়ে যাওয়ার কথা জানান। তিনি তার শিক্ষাজীবনের প্রসঙ্গ টেনে বলেন, ‘আমাদের সব ভাই বোনদের জন্য একটি ব্যক্তিগত স্কুল ছিল। যেখানে কেজি থেকে দশম শ্রেণি পর্যন্ত পড়ানো হত।’

‘‘মরমন হিলস স্কুল’ নামে পরিচিত এটি। এই স্কুলে সব ভাই বোন, চাচাতো ভাই বোন ও ভাতিজা-ভাতিজীরা পড়ত। একাদশ শ্রেণিতে উঠে আমি ‘হোম লিংক’ নামে একটি হোম স্কুলে যেতাম। আমি সেখানে পড়তাম আবার বাসায় ফিরে সব কাজ করতাম। এভাবেই কেটেছে ছোটবেলা।’

jagonews24

মারলিন ও তার দুই ভাই মুরে (১৯) ও ওয়ারেন (২১) তারাও নিজেদের গল্প শেয়ার করেছেন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে।

মারলিন জানান, ‘ভাইবোনদের মধ্যে মাধ্য ২২জন তার বাবা উইনস্টনের সঙ্গে ছিলেন। সেই ২২ জনের মধ্যে ১৬ জনই এখন তার স্ত্রী। কতটা জঘন্য ব্যক্তি তিনি যে নিজ কন্যাদেরকেই বিয়ে করেছেন!’

তার নির্দেষ অনুযায়ী আমরা নিজের মাকে ‘মম’ আর অন্য মায়েদেরকে ‘-মা’, প্রথম নামের সঙ্গে মা বলে ডাকতাম।’

jagonews24

মারলিনের ভাই ওয়ারেন ব্ল্যাকমোর বলেন, ‘সাধারণত প্রতি বাড়িতে দু’টি মা ও তাদের বাচ্চারা থাকতেন। এক পরিবার উপরের তলায় ও অন্যটি নীচের তলায়।’

ওয়ারেন আরও জানান, ‘একই দিনে যেসব বোনেরা জন্ম নিত, তাদেরকে এক গ্রুপে রাখা হয়। একইভাবে ছেলেদেরও গ্রুপ করা হয়। এমনকি একই বছরে যে কয়টি পুত্র সন্তান জন্ম নেয় তাদের নামের প্রথম অক্ষর একই হয়।’

মারলিনের সঙ্গে অনেক বছর তার বাবার কোনো যোগাযোগ নেই। কারণ তিনি ও তার দুই ভাই চান না তার বাবার পরিচয় দিতে। তবে তার বাকি ভাই-বোনেরা বাবার সঙ্গেই বাস করেন।

jagonews24

আজও মারলিন তার প্রায় ৩০ জন ভাই বোনদের সঙ্গে গ্রুপ চ্যাটের মাধ্যমে যোগাযোগ রেখেছেন। তবে তাদের মধ্যে মাত্র ৫ জনের সঙ্গে তার ভালো সম্পর্ক আছে।

২০১৭ সালে উইনস্টন ব্ল্যাকমোরের বিরুদ্ধে মৌলবাদী সম্প্রদায়ের বহুবচন বা ‘স্বর্গীয়’ বিবাহ চর্চার অভিযোগ এনে প্রশাসন তাকে ৬ মাসের গৃহবন্দী করে রেখেছিল।

সূত্র: মিরর/ডিএনএইন্ডিয়া

জেএমএস/জিকেএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]