শ্রমিক ধরপাকড় বন্ধে মালয়েশিয়ার প্রতি আহ্বান

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৬:১২ এএম, ০৮ আগস্ট ২০১৭ | আপডেট: ০৬:১৬ এএম, ০৮ আগস্ট ২০১৭

বাংলাদেশিসহ অবৈধ প্রবাসীদের ধরপাকড় বন্ধে মালয়েশিয়ার প্রতি আহ্বান জানিয়েছে দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ার বিভিন্ন দেশ। গত কয়েকদিনের ধরপাকড়ে এখন পর্যন্ত ৬ হাজারেরও বেশি প্রবাসীকে গ্রেফতার করেছে মালয়েশিয়ার আইন-শৃঙ্খলাবাহিনী।

অপেক্ষাকৃত উন্নত মালয়েশিয়া এশিয়ার অভিবাসী শ্রমিকদের জন্য আকর্ষণীয় গন্তব্য। দেশটির নির্মাণ থেকে কৃষি ও বিভিন্ন খাতে এসব অভিবাসী শ্রমিকরা কাজ করছেন। কিন্তু দেশটিতে কয়েক লাখ শ্রমিক রয়েছেন; যাদের বৈধ কোনো নথি নেই।

গত ৩০ জুন বিদেশিদের নিবন্ধনের সময় শেষ হওয়ার পর কর্তৃপক্ষ অবৈধ শ্রমিকদের বিরুদ্ধে সাঁড়াশি অভিযান শুরু করে। সর্বশেষ সরকারি তথ্য বলছে, অভিযানে এখন পর্যন্ত ৬ হাজার ৩৮ জন নথিবিহীন বিদেশি শ্রমিককে গ্রেফতার করা হয়েছে। এদের বেশিরভাগই বাংলাদেশ এবং ইন্দোনেশিয়ার। গ্রেফতারকৃতদের মধ্যে মিয়ানমার, ফিলিপাইন ও ভিয়েতনামের শ্রমিকও রয়েছেন।

আসিয়ানভূক্ত দেশগুলোর সংসদ সদস্যদের একটি দল সম্প্রতি মালয়েশিয়া সফর করেছে। আসিয়ানের মানবাধিকারবিষয়ক কমিটি আশিয়ান পার্লামেন্টারিয়ানস ফর হিউম্যান রাইটস’র সদস্যরা মালয়েশিয়া সফরের পর অবৈধ শ্রমিকদের বিরুদ্ধে দেশটির সরকারের চলমান অভিযান বন্ধ ও শ্রমিকদের অধিকার নিশ্চিতে কর্তৃপক্ষের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন।

সফর শেষে ফিলিপাইন কংগ্রেসের নারী সদস্য এমি দে জেসাস বার্তাসংস্থা এএফপিকে বলেন, ‘এই অমানবিক কার্যক্রম অবশ্যই বন্ধ করতে হবে।’

তিনি বলেন, ‘অনেক অভিবাসী ক্রমাগত ভয়ের মধ্যে বসবাস করছেন। আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী ভয়াবহ অবস্থার মধ্যে অভিবাসীদেরকে অনির্দিষ্টকালের জন্য আটকে রাখছে; যা জরুরি উদ্বেগের বিষয়।’

অভিবাসীদের কর্মসংস্থান তৈরি করতে দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ার দেশগুলোকে একটি আঞ্চলিক চুক্তিতে পৌঁছানোর আহ্বান জানিয়েছে আশিয়ান পার্লামেন্টারিয়ানস ফর হিউম্যান রাইটস। শ্রমিকদের অধিকার ও কর্মসংস্থানের সুরক্ষাই এই চুক্তির মূল উদ্দেশ্য।

সূত্র : এএফপি।

এসআইএস/জেআইএম

আপনার মতামত লিখুন :