অবরোধের পরে প্রথমবার খাদ্য সহায়তা ইয়েমেনে

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রকাশিত: ১০:০১ এএম, ২৭ নভেম্বর ২০১৭ | আপডেট: ১০:১৩ এএম, ২৭ নভেম্বর ২০১৭

তিন সপ্তাহের অবরোধের পর প্রথমবারের মতো খাদ্য সামগ্রী বোঝাই জাতিসংঘের একটি জাহাজ ইয়েমেন সীমান্তে পৌঁছেছে। প্রায় এক মাস ধরে ইয়েমেনের ওপর অবরোধ আরোপ করেছে সৌদি জোট। তাদের এ অবরোধের কারণে ইয়েমেনের কয়েক লাখ মানুষ খাদ্য সংকটের মধ্যে দিন কাটাচ্ছে।

শনিবার রাজধানী সানায় ওষুধ বহনকারী বিমান প্রবেশের অনুমতি দেয়া হয়। তারপরেই খাদ্যসামগ্রী বোঝাই জাহাজ পৌঁছায় সেখানে।

সৌদি আরবের রাজধানী রিয়াদের কিং খালেদ আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে ক্ষেপণাস্ত্র হামলার ঘটনাকে কেন্দ্র করে গত ৬ নভেম্বর ইয়েমেনের ওপর অবরোধ আরোপ করে সৌদি জোট। দেশটির সঙ্গে স্থল, সাগর এবং আকাশসীমা বন্ধ করে দেয়া হয়।

ইয়েমেনের হুতি বিদ্রোহীরা রিয়াদে ক্ষেপণাস্ত্র হামলা চালিয়েছে। তবে ক্ষেপণাস্ত্রটি কোথাও হামলা চালানোর আগেই এটি ধ্বংস করে দিয়েছে সৌদি।

কয়েক হাজার টন খাদ্য সামগ্রী বোঝাই জাহাজটি সালেফ বন্দরে পৌঁছেছে। বিশ্ব খাদ্য কর্মসূচির পরিচালক স্টিফেন অ্যান্ডারসন বিবিসিকে জানিয়েছেন, ওই জাহাজে যে পরিমাণ খাদ্য সামগ্রী রয়েছে তা ইয়েমেনের উত্তরাঞ্চলের প্রায় ১৮ লাখ মানুষের জন্য যথেষ্ট।

ইয়েমের ২০ লাখের বেশি মানুষের জরুরি ভিত্তিতে মানবিক সহায়তা প্রয়োজন। এদের মধ্যে ১১ লাখই শিশু। তীব্র অপুষ্টিতে ভোগা ৪ লাখ শিশু মৃত্যু ঝুঁকিতে রয়েছে। জাতিসংঘ সতর্ক করে বলেছে, অবরোধের কারণে ৭ লাখ মানুষ দুর্ভিক্ষে পতিত হবে। আর এর একটা বড় অংশই শিশু।

টিটিএন/জেআইএম

আপনার মতামত লিখুন :