মাটির বাড়ি থেকে কলসিভর্তি রূপার মুদ্রা উদ্ধার

মনিকা সাহা
মনিকা সাহা মনিকা সাহা , কলকাতা প্রতিনিধি কলকাতা থেকে
প্রকাশিত: ০৩:১৪ পিএম, ১৪ আগস্ট ২০১৮

বহু বছরের পুরনো মাটির বাড়ি ভাঙতে গিয়ে কলসিভর্তি রূপার মুদ্রা পাওয়া গেছে। ঘটনাটি ঘটেছে পশ্চিমবঙ্গের কামারপুকুরের মধুবাটিতে। খবর পেয়ে গোঘাট থানার পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে মুদ্রাগুলি উদ্ধার করে। পুলিশ জানিয়েছে, তামার ছোট হাঁড়িতে ৩৩টি রূপার মুদ্রা উদ্ধার করা হয়েছে।

মুদ্রাগুলির হেফাজতের জন্য প্রত্নতত্ত্ব বিভাগের সঙ্গে যোগাযোগ করা হবে। স্থানীয় সূত্রে জানানো হয়েছে, নয় বছর আগে মধুবাটি গ্রামের বাসিন্দা হরিশচন্দ্র মণ্ডলের কাছ থেকে তার আত্মীয় নৃপেন মণ্ডল দোতলা মাটির বাড়িটি কিনেছিলেন।

কিন্তু কিছুদিন পর বাড়িটি নিচের দিকে বসে যেতে শুরু করে। পরে নৃপেন সরকারি আবাসন পেলে পরিবার নিয়ে সেখানে উঠে যান। বর্তমানে বাড়িটি বিপজ্জনক হয়ে যাওয়ায় টিন, কাঠের দরজা ও জানালা বিক্রি করার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। সে কারণেই বাড়ি ভাঙার কাজ চলছিল।

বাড়ির দোতলার দেওয়াল ভাঙতে গিয়ে একটি তামার কলসি হঠাৎ উপর থেকে মাটিতে পড়ে। কলসি নীচে পড়তেই বেরিয়ে পড়ে রূপার মুদ্রাগুলি। স্থানীয়রা মুদ্রাগুলি দেখতে বাড়িতে ভিড় করেন। সেই সময় কিছু মুদ্রা লুট হয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে। পরে পুলিশ খবর পেয়ে মুদ্রাগুলি উদ্ধার করে নিয়ে যায়। পুলিশ ধারণা করছে, ইংরেজ আমলের ওই মাটির বাড়ির দেওয়ালের ভেতরে কলসিতে কয়েনগুলো রাখা হয়েছিল।

নৃপেন বলেন, বাড়িটি প্রায় ৯০ বছরের প্রাচীন। দেবত্র সম্পত্তির ওই মাটির বাড়িটি কেনার পর সংস্কার করা হয়েছিল। তাও বাড়িটি বসে যাচ্ছিল বলে ভেঙে নতুন করে নির্মাণের পরিকল্পনা নিয়েছিল। প্রায় ৪০ ফুট উপর থেকে রূপোর মুদ্রা ভর্তি হাঁড়িটি মাটিতে পড়ে গেলে কিছু ছড়িয়ে যায়। সেখান থেকে কিছু মুদ্রা লুট হয়েছে। বাকিগুলো পুলিশ নিয়ে গেছে।

টিটিএন/আরআইপি

আপনার মতামত লিখুন :