সৌদিতে এবার ‘ষাঁড় দৌড়’

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
আন্তর্জাতিক ডেস্ক আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৮:৫২ এএম, ২৪ জানুয়ারি ২০১৯
স্পেনের প্যামপ্লোনার ষাঁড় দৌড়ের মতো উৎসব আয়োজন করার পরিকল্পনা ব্যক্ত করলেও সে সম্পর্কে বিস্তারিত জানায়নি সৌদি বিনোদন কর্তৃপক্ষ

সম্প্রতি যুক্তরাষ্ট্র প্রবাসী সৌদি সাংবাদিক জামাল খাশোগির হত্যাকাণ্ডকে কেন্দ্র করে আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের সামনে যুবরাজ মোহাম্মদ এবং সৌদি আরবের ভাবমূর্তি অনেকাংশে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। তাই বলে সৌদিতে একের পর এক বিশ্বকে তাক লাগানোর পরিবর্তন কিন্তু থেমে নেই। সম্প্রতি উন্মুক্ত মঞ্চে আয়োজিত কনসার্টে একসঙ্গে নেচেছেন-গেয়েছেন সৌদি তরুণ-তরুণীরা।

এবার শোনা গেল সৌদি আরব রাষ্ট্রীয় বিনিয়োগে দেশের বিনোদন খাত উন্নয়নের যে উচ্চাভিলাষী পরিকল্পনা ব্যক্ত করেছে, সেই পরিকল্পনার মধ্যে স্পেনের প্যাম্পলোনার ঐতিহ্যবাহী ষাঁড়ের দৌড় আয়োজনও রয়েছে।

মধ্যপ্রাচ্যের রক্ষণশীল রাজ্যটি মোমের মূর্তির একটি জাদুঘর তৈরির পরিকল্পনাও করছে, জনপ্রিয় র‍্যাপার জে যি যেটির উদ্বোধনী অনুষ্ঠান সঞ্চালন করবেন বলে আশা করা হচ্ছে। সৌদি আরবের নাগরিক বিনোদন কর্তৃপক্ষের প্রধান তুর্কি-আল-শেখ ধারণা করছেন, এসব পরিকল্পনা বাস্তবায়নের মাধ্যমে বিলিয়ন ডলার আয় করার সম্ভাবনা রয়েছে। সৌদি আরবকে ওই অঞ্চলের প্রধান বিনোদন কেন্দ্রে পরিণত করার এই পরিকল্পনার মূল মদদদাতা যুবরাজ মোহাম্মদ বিন সালমান।

মঙ্গলবার রিয়াদে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে সৌদি বিনোদন কর্তৃপক্ষের ভবিষ্যৎ কৌশল তুলে ধরা হয়; যেখানে ২০১৯ সালে তাদের কী ধরনের অনুষ্ঠান আয়োজনের পরিকল্পনা রয়েছে তা তুলে ধরেন সংস্থার প্রধান তুর্কি-আল-শেখ।

প্যামপ্লোনার সান ফেরমিনের ষাঁড় দৌড়ের উৎসবের পাশাপাশি ই-গেমিং টুর্নামেন্টেরও আয়োজন করার বিষয়ে চিন্তা করছে তারা। এ ছাড়া অ্যানিমেশন ছবি ‘আলাদিন’ এবং ‘দ্য লায়ন কিং’ এর মতো মিউজিক্যাল এবং ‘এনবিএ’র (অ্যামেরিকার বাস্কেটবল লিগ) একটি ম্যাচও আয়োজন করার কথা ভাবছে তারা।

পরিকল্পনা রয়েছে, কোরআন পাঠের একটি প্রতিযোগিতা আয়োজনের, যার প্রথম পুরস্কারের অঙ্কটা হবে প্রায় ১০ লাখ পাউন্ড। আরেকটি প্রতিযোগিতা হবে সবচেয়ে শ্রুতিমধুর আজানের। জাদুবিদ্যার অনুশীলন সৌদি আরবে গুরুতর অপরাধ হিসেবে গণ্য হলেও বিশ্বের শীর্ষস্থানীয় জাদুকরদের নিয়ে অনুষ্ঠান আয়োজনের কথাও চিন্তা করছে কর্তৃপক্ষ।

বিনোদন কর্তৃপক্ষের প্রধান তুর্কি-আল-শেখ বলেন, ‘এসব প্রকল্প লাখ লাখ না হলেও হাজারো মানুষের কর্মসংস্থান তৈরি করবে, যেখান থেকে আয় হবে কোটি কোটি ডলার।’

সূত্র: বিবিসি বাংলা

এসআর/আরআইপি