পদত্যাগ ঠেকাতে রাহুলের বাড়িতে প্রিয়াঙ্কা

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
আন্তর্জাতিক ডেস্ক আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৩:১৫ পিএম, ২৮ মে ২০১৯

পদত্যাগের সিদ্ধান্ত থেকে সরে আসছেন না কংগ্রেস সভাপতি রাহুল গান্ধী। দলের কার্যনির্বাহী কমিটির বৈঠক থেকে শুরু করে একাধিক আলোচনায় নিজের বক্তব্য স্পষ্ট করে জানিয়েছেন তিনি। এমন পরিস্থিতিতে মঙ্গলবার বিকাল সাড়ে ৪টায় তার বাড়িতে একটি গুরুত্বপূর্ণ বৈঠক হতে চলেছে।

দলের একাধিক প্রবীণ নেতা ওই বৈঠকে উপস্থিত থাকবেন। নিজের সিদ্ধান্ত ফিরিয়ে নিতে রাহুলকে তারা অনুরোধ করবেন। সকালেই কংগ্রেস সভাপতির বাড়িতে যান তার বোন প্রিয়াঙ্কা গান্ধী, কংগ্রেসের জাতীয় মুখপাত্র রণদীপ সুরজেওয়ালা, রাজস্থানের উপমুখ্যমন্ত্রী শচীন পাইলট।

এদিকে রাহুল নিজের সিদ্ধান্তে অনড় থাকায় আগামী সপ্তাহে আবার বৈঠকে বসতে চলেছে কংগ্রেসের কার্যনির্বাহী কমিটির। সাম্প্রতিক পরিস্থিতি সম্পর্কে কংগ্রেস ওয়ার্কিং কমিটির সদস্য তথা আসামের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী তরুণ গগৈ জানিয়েছেন, রাহুল নিজের মত পরিবর্তন করবেন না। দলের কয়েকজন প্রবীণ নেতা যে আচরণ করেছেন তা তিনি মেনে নিতে পারেননি। আর সে কারণেই তার মনে হয়েছে সভাপতি পদে থেকে কাজ করা ঠিক হবে না। রাহুল আশা করেছিলেন ওই প্রবীণ নেতারা নির্বাচনে কঠোর পরিশ্রম করবেন। কিন্তু তাদের কাজ তাকে খুশি করতে পারেনি।

দলের ভেতরেই অনেকে প্রশ্ন করেছেন বিপদের সময় সেনাপতি কী করে পরিস্থিতি থেকে দূরে চলে যেতে পারেন? এমনটা কি তার করা উচিত? তরুণ গগৈ বলেন, এই প্রশ্নের উত্তরে দলকে রাহুল জানিয়েছেন, তিনি কোনভাবেই পরিস্থিতি থেকে দূরে চলে যাচ্ছেন না। আগের চেয়ে আরও বেশি করে লড়াই করবেন। কিন্তু দলের দায়িত্বে না থাকলে মতাদর্শের লড়াই বেশি করতে পারবেন বলেই পদ ছাড়তে চাইছেন এই কংগ্রেস সভাপতি।

একদিন আগেই কংগ্রেসের দুই বর্ষীয়ান নেতা আহমেদ প্যাটেল এবং কে কে বেনু গোপালের সঙ্গে বৈঠক করেন রাহুল। সেখানে তিনি নিজের বিকল্প কাউকে খুঁজে বের করতে বলেন। এই দুজনের সঙ্গে দেখা করলেও রাজস্থানের মুখ্যমন্ত্রী অশোক গেহলতের সঙ্গে দেখা করতে চাননি রাহুল। কংগ্রেসের রাজনীতিতে অশোক অত্যন্ত প্রভাবশালী একটি নাম।

রাহুলের টিমেও অশোক গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করেছেন। কিন্তু ভারতের গত নির্বাচনে তিনি যেভাবে তার ছেলের জন্য প্রচার করেছেন তাতে দলের ক্ষতি হয়েছে বলে মনে করেন রাহুল। আর সে কারণেই অশোকের সঙ্গে দেখা না করার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন তিনি। এরকমই নানা ঘটনাপ্রবাহের মধ্যে আজ রাহুলের বাড়ি যাচ্ছেন কংগ্রেস নেতারা।

এদিকে কংগ্রেসের বর্তমান পরিস্থিতি সম্পর্কে গুজব ছড়ানো হচ্ছে বলে দাবি করে টুইট করেছেন দলেন প্রধান মুখপাত্র।
সোমবার এক টুইট বার্তায় কংগ্রেস মুখপাত্র রণদীপ বলেন, সংবাদমাধ্যম থেকে শুরু করে সবার কাছে কংগ্রেসের তরফ থেকে অনুরোধ করা হচ্ছে আপনারা আমাদের দলের অভ্যন্তরীণ বিষয় সম্পর্কে শ্রদ্ধাশীল হন। কংগ্রেসের কার্যনির্বাহী কমিটি রুদ্ধদ্বার বৈঠকে কী আলোচনা করছে তা নিয়ে মতামত পোষণের নামে গুজব ছড়াবেন না। সংবাদমাধ্যমের এই আচরণ অপ্রয়োজনীয় এবং অবাঞ্ছিত।

টিটিএন/পিআর

আপনার মতামত লিখুন :