নকল দাঁত লাগিয়ে কোরবানির ছাগল বিক্রি, ব্যবসায়ী আটক

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
আন্তর্জাতিক ডেস্ক আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রকাশিত: ১১:৩৭ এএম, ১৬ জুন ২০২৪

কোরবানিতে ব্যবহৃত ছাগলের মুখে প্লাস্টিকের দাঁত লাগিয়ে বিক্রি করার অভিযোগে এক বিক্রেতাকে আটক করেছে পুলিশ। সম্প্রতি পাকিস্তানের করাচিতে ঘটেছে চাঞ্চল্যকর এই ঘটনা। পাকিস্তানি সংবাদমাধ্যম এআরওয়াই নিউজের খবরে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

একটি ভিডিওতে দেখা যায়, একজন ক্রেতা একটি ছাগলের মুখ থেকে প্লাস্টিকের দাঁত সরিয়ে নিচ্ছেন। ভিডিওটি সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হলে ব্যাপক সমালোচনার সৃষ্টি হয়। তারপরেই নড়েচড়ে বসে পাকিস্তানি প্রশাসন।

আরও পড়ুন>>

গত শনিবার (১৫ জুন) করাচি পুলিশ জানিয়েছে, কোরবানির ছাগলের মুখে নকল দাঁত লাগিয়ে বিক্রির অভিযোগে গুলবার্গ চৌরঙ্গি এলাকা থেকে এক বিক্রেতাকে আটক করা হয়েছে। প্রমাণস্বরূপ তার কাছ থেকে সাতটি ছাগল জব্দ করেছে পুলিশ।

পুলিশ জানিয়েছে, ভাইরাল ভিডিওর মাধ্যমেই কৃত্রিম দাঁত লাগিয়ে ছাগল বিক্রির তথ্য পেয়েছিল তারা। সেই অনুযায়ী পরে ব্যবস্থা নেওয়া হয়।

 
 
 
View this post on Instagram

A post shared by Aik News (@aiknewspakistan)

জিজ্ঞাসাবাদে আটক ব্যবসায়ী জানান, তিনি হায়দ্রাবাদের বাসিন্দা এবং ঈদুল আজহার জন্য পশু বিক্রি করতে করাচিতে এসেছিলেন।

এ ঘটনায় তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ।

কোরবানির পশুর সঙ্গে বয়স ও দাঁতের সম্পর্ক

হাদিসে রয়েছে, উট কোরবানি করতে হলে তার বয়স কমপক্ষে পাঁচ বছরের হতে হবে। গরু ও মহিষের বয়স হতে হবে কমপক্ষে দুই বছর। আর ছাগল, ভেড়া ও দুম্বা কমপক্ষে এক বছরের হতে হবে।

ভেড়া ও দুম্বা যদি এক বছরের কিছু কমও হয়, কিন্তু এমন হৃষ্টপুষ্ট যে, দেখতে এক বছরের মতো মনে হয়, তাহলে সেটি কোরবানি করা জায়েজ হবে। এমন ক্ষেত্রে ভেড়া ও দুম্বার বয়স কমপক্ষে ছয় মাস হতে হবে, তবে ছাগলের বয়স এক বছরের কম হলে কোনোভাবেই সেটি কোরবানি করা যাবে না।

মনে রাখতে হবে

যেহেতু দিন-তারিখ নির্ণয় করে বয়সের ব্যাপার নিশ্চিত হওয়া কঠিন, তাই আল্লাহ তাআলার অশেষ রহমত যে, কোরবানিদাতার সুবিধার্থে এ বয়স পূর্ণ হওয়ার আলামতস্বরূপ দুটি দাঁত গজিয়ে দেন। এগুলোকে পশুর বয়স নির্ধারিণী দাঁত বলা হয়। এসব দাঁত পশু কোরবানি দেওয়ার উপযুক্ত হওয়ার আলামত বা চিহ্ন মাত্র।

বয়স পূর্ণ হলেও দাঁত কখনো কখনো না-ও গজাতে পারে। কিন্তু দাঁত গজালে বয়স পূর্ণ না হয়ে পারে না। দুটি দাঁত দেখা গেলে কোরবানির পশুর বয়স যে পূর্ণ হয়েছে, তার নিশ্চিত প্রমাণ মেলে। ফলে কোরবানি বৈধ হওয়ার জন্য পশুর দুটি দাঁত গজিয়েছে কি না তা দেখে নেওয়া ভালো।

তবে অনেক পশুর বয়স হওয়া সত্ত্বেও দাঁত ওঠে না। সেক্ষেত্রে দাঁত শর্ত নয়, বরং দাঁত দেখা যাক আর না যাক পশুর বয়স হলেই কোরবানি দেওয়া যাবে। মূলত দাঁতের কথা হাদিসে উল্লেখ নেই; বয়সের কথাই হাদিসে বলা রয়েছে।

কেএএ/

পাঠকপ্রিয় অনলাইন নিউজ পোর্টাল জাগোনিউজ২৪.কমে লিখতে পারেন আপনিও। লেখার বিষয় ফিচার, ভ্রমণ, লাইফস্টাইল, ক্যারিয়ার, তথ্যপ্রযুক্তি, কৃষি ও প্রকৃতি। আজই আপনার লেখাটি পাঠিয়ে দিন [email protected] ঠিকানায়।