কোর অব সিগন্যালসের ৯ম কর্নেল কমান্ড্যান্টের অভিষেক

বিশেষ সংবাদদাতা
বিশেষ সংবাদদাতা বিশেষ সংবাদদাতা
প্রকাশিত: ০৫:৫৯ পিএম, ০৩ মার্চ ২০২১

সেনাবাহিনীর সিগন্যাল ট্রেনিং সেন্টার অ্যান্ড স্কুল (এসটিসিএন্ডএস) এর ব্যবস্থাপনায় সিগন্যাল কোরের নবম কর্নেল কমান্ড্যান্টের অভিষেক অনুষ্ঠান বুধবার (৩ মার্চ) যশোর সেনানিবাসে অনুষ্ঠিত হয়েছে।

বাংলাদেশ ইনস্টিটিউট অব ইন্টারন্যাশনাল অ্যান্ড স্ট্র্যাটেজিক স্টাডিস এর মহাপরিচালক মেজর জেনারেল মো. এমদাদ উল বারীকে কোর অব সিগন্যালসের নবম কর্নেল কমান্ড্যান্ট হিসেবে অভিষিক্ত করা হয়। তিনি অনুষ্ঠানস্থলে পৌঁছালে সিগন্যালস কোরের একটি চৌকস দল তাকে গার্ড অব অনার প্রদান করে।

পরবর্তীতে সিগন্যালস কোরের জ্যেষ্ঠ অধিনায়ক এবং জ্যেষ্ঠ সুবেদার মেজর নবম কর্নেল কমান্ড্যান্টকে সিগন্যাল কোরের কর্নেল কমান্ড্যান্টের র্যাংক ব্যাজ পরিয়ে দেন।

সেনাবাহিনীর ঐতিহ্য ও রীতি অনুযায়ী কর্নেল কমান্ড্যান্ট একটি অত্যন্ত গৌরবময় এবংমর্যাদাপূর্ণ স্বীকৃতি। নবনিযুক্ত কর্নেল কমান্ড্যান্ট অনুষ্ঠানে উপস্থিত সামরিক সদস্যবৃন্দের উদ্দেশে তার বক্তব্যের শুরুতেই শ্রদ্ধার সঙ্গে স্মরণ করেন জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে। একইসঙ্গে তিনি স্মরণ করেন ১৯৭১ সালে মুক্তিযুদ্ধে আত্মোৎসর্গকারী সিগন্যাল কোরের বীর সেনানীসহ সকল বীর মুক্তিযোদ্ধাদের।

তিনি তার বক্তব্যে আধুনিক যোগাযোগ, যোগাযোগ নিরাপত্তা, তথ্য প্রযুক্তির উন্নয়ন ও গবেষণার ওপর গুরুত্ব উল্লেখ করে সিগন্যাল কোরের সকল সদস্যদের ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়ার লক্ষ্যে নিরলস প্রচেষ্টা চালিয়ে যাবার জন্য দিক নির্দেশনামূলক বক্তব্য প্রদান করেন।

অনুষ্ঠানে অন্যান্যদের মাঝে উপস্থিত ছিলেন এরিয়া কমান্ডার, সেনাসদর সিগন্যাল পরিদপ্তরের পরিচালক, কমান্ড্যান্ট এসটিসিএন্ডএস, সিগন্যালস্ কোরের অধীনস্থ সকল ইউনিটের অধিনায়ক ও সদস্যবৃন্দ এবং যশোর এরিয়ার সামরিক কর্মকর্তাবৃন্দ।

এমইউ/এমএইচআর/জিকেএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]