বিধিনিষেধে সড়কে রিকশার দাপট

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৭:০৪ পিএম, ২৯ জুলাই ২০২১

কঠোর বিধিনিষেধের মধ্যে সড়কে বেড়েছে যান চলাচল। গণপরিবহন ছাড়া ব্যক্তিগত গাড়ি, মোটরসাইকেল ও রিকশার আধিক্য দেখা গেছে। চেকপোস্টগুলোতে গাড়ি-মোটরসাইকেল আরোহীদের জিজ্ঞাসাবাদের মুখে পড়তে হলেও রিকশা নির্বিঘ্নে চলাচল করছে।

বৃহস্পতিবার (২৯ জুলাই) বিকেল ৩টায় রাজধানীর মিরপুর-১০ নম্বরের শাহআলী মার্কেটের সামনে এমনটি দেখা যায়। এখানে চেকপোস্টে তিন হাজার টাকা জরিমানা আদায় করেছে ট্রাফিক পুলিশ।

চেকপোস্টে দায়িত্বরত ট্রাফিক সার্জেন্ট মিন্টু চন্দ্র দে বলেন, ‘বিধিনিষেধের মধ্যে বিনা কারণে ঘর থেকে বের হওয়ায় সকাল থেকে দুপুর পর্যন্ত মামলা হয়েছে তিনটি। তাদের কাছ থেকে মোট তিন হাজার টাকা জরিমানা আদায় করা হয়েছে।’

jagonews24

এ সময় বিধিনিষেধে বের হওয়া বেসরকারি প্রতিষ্ঠানের কর্মকর্তা সামিউর রহমানকে এক হাজার টাকা জরিমানা করে ট্রাফিক পুলিশ।

সামিউর বলেন, ‘অফিসের কাজে মোটরসাইকেলে তেল নিয়ে মিরপুর-১৪ নম্বর পাম্প থেকে ফিরছিলাম। চেকপোস্ট পার হওয়ার সময় পুলিশ গতিরোধ করে। বিধিনিষেধে ঘর থেকে বের হওয়া ও মোটরসাইকেলে দুজন যাতায়াত করায় এক হাজার টাকা জরিমানা গুনতে হয়েছে।’

এদিক মোটরসাইকেলে দুজন আরোহন করায় মনোয়ার নামের আরেক ব্যক্তিকেও গুনতে হয়েছে জরিমানা।

jagonews24

তিনি বলেন, ‘মিরপুর থেকে যাচ্ছিলাম প্রবাসী মন্ত্রণালয়ে। আমার মোটরসাইকেলে বড় ভাই ছিল। দুজনকেই এক হাজার টাকা জরিমানা দিতে হয়েছে।’

মিরপুর-২ নম্বরে এক রিকশাচালক জানান, সড়কে চলতে তাদের কোনো সমস্যা হচ্ছে না। এমনকি যাত্রীদেরও জিজ্ঞাসাবাদ করছে না পুলিশ। মোটরচালিত রিকশা দেখলে রেকার দিচ্ছে পুলিশ।

এদিকে করোনা সংক্রমণ রোধে ১ থেকে ৭ জুলাই পর্যন্ত কঠোর বিধিনিষেধ আরোপ করে সরকার। পরে তা ১৪ জুলাই পর্যন্ত বাড়ানো হয়। ঈদের কারণে আটদিন বিধিনিষেধ শিথিল করার পর ২৩ জুলাই থেকে আবার কঠোর বিধিনিষেধ আরোপ করে সরকার, যা ৫ আগস্ট পর্যন্ত চলবে।

এসএম/জেডএইচ/জেআইএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]