সরকার ‘মনোনীত’দের দিয়ে দেশ চালাচ্ছে : মোশাররফ

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক
জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৮:২৫ পিএম, ২৩ এপ্রিল ২০১৯

সরকার ‘মনোনীত’দের দিয়ে দেশ চালাচ্ছে বলে অভিযোগ করেছেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য খন্দকার মোশাররফ হোসেন।

মঙ্গলবার বিকেলে এক আলোচনা সভায় তিনি এ অভিযোগ করেন।

তিনি বলেন, ‘আজকে গণতন্ত্র বাংলাদেশে অনুপস্থিত, আওয়ামী লীগের বাক্সে বন্দি। আপনারা চেয়ে দেখুন- আজকের যে পার্লামেন্ট এই পার্লামেন্টে দুজন ছাড়া সবাই আওয়ামী লীগের মনোনীত ব্যক্তি। আপনারা যদি সর্বশেষ উপজেলা নির্বাচন দেখেন সেখানেও দেখবেন এই পর্যন্ত ৪৪৫টি উপজেলা নির্বাচনের ঘোষিত ফলাফলে ৪ জন ছাড়া ৪৪১ জন আওয়ামী লীগের মনোনীত প্রার্থী।’

মোশাররফ বলেন, ‘বর্তমান সরকার আসলে কোনো নির্বাচিত সরকার নয়, এই সরকার পরিচালিত হচ্ছে- আওয়ামী লীগের মনোনীত ব্যক্তিদের দ্বারা। পার্লামেন্ট, মন্ত্রণালয় এবং সর্বশেষ উপজেলা সর্বক্ষেত্রেই আজকে দেশ নির্বাচিত প্রতিনিধিদের দ্বারা নয়, মনোনীত প্রতিনিধিদের দ্বারা পরিচালিত হচ্ছে। আমাদের সংবিধানে এবং নৈতিকতায় যে পদগুলো জনগণের নির্বাচিত প্রতিনিধিদের দ্বারা পরিচালিত হওয়ার কথা সেখানে মনোনীত ব্যক্তিরা এই সব পদ অধিকার করে রেখেছেন অর্থাৎ বাংলাদেশে এখন অলিখিত বাকশাল প্রতিষ্ঠিত হয়েছে।’

এই অলিখিত বাকশাল থেকে বাংলাদেশকে মুক্ত করতে খালেদা জিয়ার মুক্তির প্রসঙ্গ টেনে তিনি বলেন, ‘গণতন্ত্রের মাতা দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়াকে কারা অভ্যন্তরে রেখে গণতন্ত্রকে পুনঃপ্রতিষ্ঠা করা সম্ভব না।’

‘কাজী আসাদ যে আদর্শকে লালন করে আমৃত লালন করে গেছেন, তার প্রতি যদি প্রকৃত শ্রদ্ধা নিবেদন করতে হয় তাহলে দেশনেত্রীকে মুক্ত করে দেশে গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠা ও স্বৈরাচার অবসান ঘটাতে হবে, জনগণের অধিকার প্রতিষ্ঠা করতে হবে।’

কাজী আসাদের পরিবারের পাশে সবসময় বিএনপি থাকবে বলেও জানান তিনি।

গত ৩ এপ্রিল বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা কাউন্সিলের সদস্য ছাত্রদলের প্রতিষ্ঠাতা আহ্বায়ক কাজী আসাদুজ্জামান আসাদ চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৬৭ বছর।

জাতীয় প্রেস ক্লাবের হলে ছাত্রদল সাবেক ছাত্রনেতাদের উদ্যোগে প্রয়াত এই নেতার স্মরণে আলোচনা সভা আয়োজন করা হয়।

ছাত্রদলের সাবেক সভাপতি শামসুজ্জামান দুদুর সভাপতিত্বে ও খায়রুল কবির খোকনের পরিচালনায় আলোচনা সভায় উপস্থিত ছিলেন সাবেক ছাত্রদল নেতাদের মধ্যে আমান উল্লাহ আমান, আসাদুজ্জামান রিপন, হাবিবুর রহমান হাবিব, শহীদউদ্দিন চৌধুরী এ্যানি, এবিএম মোশাররফ হোসেন, আমিরুল ইসলাম খান আলীম, আবদুল কাদের ভুঁইয়া জুয়েল, ছাত্রদলের সাধারণ সম্পাদক আকরামুল ইসলাম ও কাজী আসাদের স্ত্রী ইয়াসমীন আসাদ।

কেএইচ/জেএইচ/এমএস

আপনার মতামত লিখুন :