সরকার সত্য কথা বললেও মানুষ বিশ্বাস করে না: মান্না

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৬:৩৮ পিএম, ২৯ নভেম্বর ২০২১

নাগরিক ঐক্যের আহ্বায়ক মাহমুদুর রহমান মান্না বলেছেন, এই সরকারকে মানুষ পছন্দ করে না। ভোট ডাকাতি, দুঃশাসন, এক ব্যক্তির কাছে সব ক্ষমতা কেন্দ্রীভূত করা- এসব কারণেই মানুষ তাদের পছন্দ করে না। তারা এখন সত্য কথা বললেও মানুষ বিশ্বাস করে না।

সোমবার (২৯ নভেম্বর) জাতীয় প্রেস ক্লাবের আবদুস সামাদ হলে কল্যাণ রাষ্ট্র ভাবনা শীর্ষক নাগরিক ঐক্যের আলোচনা সভায় তিনি এসব কথা বলেন।

মান্না বলেন, মানুষের সুখও একটা বড় জিনিস। আমার কাছে টাকা আছে। কিন্তু রাস্তায় বের হলে হঠাৎ কোনো এক গাড়ি আমাকে চাপা দিতে পারে। হতে পারে সেটা সিটি করপোরেশনের গাড়ি অথবা সুন্দর কোনো গাড়ি। আমার রাস্তায় কোনো নিরাপত্তা নেই, চলার নিরাপত্তা নেই।

তিনি বলেন, মানুষ যে টাকা বেতন পায়, তা দিয়ে চলে না। কারণ জিনিসপত্রের দাম বেড়ে গেছে। উন্নয়ন আমি সেটাকেই বলবো, যেটা মানুষের সব প্রয়োজন মেটায়।

জিডিপিকে ‘ফাঁকিবাজি’ মন্তব্য করে মান্না বলেন, এই সরকার ফাঁকিবাজ। তাই ফাঁকি দিয়ে মানুষের ভোট কেড়ে নেয়। ফাঁকি দিয়ে মানুষের অধিকার কেড়ে নেয়। তারা মানুষকে জিডিপি নির্ভর উন্নয়ন বোঝানোর চেষ্টা করছে।

অর্থনীতি নিয়ন্ত্রণ করতে হলে রাজনৈতিকভাবে নিয়ন্ত্রণ করতে হবে মন্তব্য করে মান্না বলেন, তা না হলে অর্থনীতি নিয়ন্ত্রণ করা সম্ভব না। সেজন্য নাগরিক ঐক্যের কথা বলছি। সোস্যাল অরগানাইজেশন বা কালচারাল অরগানাইজেশন যদি বলেন, আমরা একটা কল্যাণ রাষ্ট্র নির্মাণ করবো। তার আগে আপনাকে আগে ক্ষমতায় যেতে হবে। ক্ষমতায় গিয়ে কল্যাণের কাজ করতে হবে।

মান্না বলেন, অনেকেই হয়তো খেয়াল করবেন বিএনপি কল্যাণ রাষ্ট্রের কথা বলে। আওয়ামী লীগও বলে, জামায়াতে ইসলামিও বলে। তারা যদি কল্যাণ রাষ্ট্রের কথা বলে থাকে, তাহলে আজ কেন বেগম জিয়াকে চিকিৎসার জন্য সরকারের কাছে ধরনা দিতে হচ্ছে?

আলোচনা সভায় আরও উপস্থিত ছিলেন ছাত্র ঐক্যের নেতা ব্যারিস্টার আনোয়ার হোসেন, বাংলাদেশ পরিবেশ আইনজীবী সমিতির (বেলা) প্রধান নির্বাহী সৈয়দা রিজওয়ানা হাসান, অর্থনীতিবিদ অধ্যাপক রাশেদ আল মাহমুদ তিতুমির, অধ্যাপক নুরুল আলম বেপারী প্রমুখ।

এমআইএস/এমএইচআর/এএসএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]