সৌদির আন্তর্জাতিক কুরআন প্রতিযোগিতার চূড়ান্ত ফল প্রকাশ

ধর্ম ডেস্ক
ধর্ম ডেস্ক ধর্ম ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৫:২৪ পিএম, ১৪ অক্টোবর ২০১৮

বাদশাহ আব্দুল আজিজ আন্তর্জাতিক কুরআন প্রতিযোগিতার শীর্ষ ১৩ বিজয়ীর নাম ঘোষণা করা হয়েছে। হেফজ, তেলাওয়াত ও তাফসির বিভাগে অনুষ্ঠিত প্রত্যেক বিভাগের শীর্ষ ৩ জনের নাম ঘোষণা করেছে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ।

প্রথমবারের মতো মসজিদে নববিতে অনুষ্ঠিত প্রতিযোগিতাটির প্রথম পর্ব গত ৩ অক্টোবর (বৃহস্পতিবার) থেকে শুরু হয়। ৬ অক্টোবর থেকে মসজিদে নববিতে সকাল-সন্ধ্যায় অনুষ্ঠিত হয় মূলপর্ব। ৩দিন চলে মূলপর্বের প্রতিযোগিতা। অবশেষে ১০ অক্টোবর রাতে প্রতিযোগিতার চূড়ান্ত ফলাফল ঘোষণা করা হয়।

সৌদি আরবের বাদশাহ সালমান বিন আব্দুল আজিজের সামগ্রিক পৃষ্ঠপোষকতায় পরিচালিত হয ৪০তম আন্তর্জাতিক কুরআন প্রতিযোগিতা ২০১৮। এ প্রতিযোগিতায় যারা বিজয়ী হয়। তারা হলো-

তাজবিদ ও তাফসিরসহ ৩০পারা হেফজ গ্রুপ
তাফসির ও তাজবিদ সহকারে সম্পূর্ণ কুরআন হেফজ বিভাগে প্রথম হয়েছেন স্বাগতিক দেশ সৌদি আরবের প্রতিযোগি ইবরাহিম ইবনে আব্দুল্লাহ ইবনে আব্দুল করিম। দ্বিতীয় হয়েছেন জর্ডানের প্রতিনিধি মালেক আদনান এবং তৃতীয় হয়েছেন নাইজেরিয়ার আমের ইউনুস।

পুরস্কার : পুরস্কার হিসেবে পেয়েছেন যথাক্রমে ২লাখ ৫০ হাজার, ২ লাখ এবং ১লাখ ৫০ হাজার সৌদি রিয়াল।

তাজবিদ সহকারে পূর্ণ কুরআন
তাজবিদ সহকারে সম্পূর্ণ কুরআন হেফজ বিভাগে প্রথম হন কেনিয়ার প্রতিনিধি হাইছাম সাফার আহমাদ, দ্বিতীয় হন জর্ডানের উবাইদা মায়ান আব্দুস সালাম ফারিহাত এবং যৌথভাবে তৃতীয় স্থান লাভ করেন, নাইজেরিয়ার আব্দুল গনি আমিন এবং লিবিয়ার আব্দুল কাদের মিয়মার মিফতাহ।

পুরস্কার : তারা পুরস্কার হিসেবে লাভ করেছেন যথাক্রমে ১ লাখ ২০ হাজার, ১ লাখ এবং ৪০ হাজার সৌদি রিয়াল। তৃতীয় স্থান লাভকারী উভয়কে প্রাইজমানি ভাগ করে দেয়া হয়।

এ বিভাগে ৪র্থ স্থান অধিকার করেন বাংলাদেশের প্রতিনিধি সিলেটর সন্তান হাফেজ হুসাইন আহমদ।

তাজবিদসহ ১৫ পারা গ্রুপ
তাজবিদ সহকারে ১৫ পারা কুরআন হেফজ বিভাগে প্রথম হন ফিলিস্তিনের প্রতিনিধি মুহাম্মাদ শাহীদ আহমাদ ইসমাইল, দ্বিতীয় হন লিবিয়ার সাদেক আলী মেফতাহ এবং তৃতীয় হন বাহরাইনের ইয়াহিয়া বিলাল ইউসুফ ইয়াকুব।

পুরস্কার : এ বিভাগে শীর্ষস্থানে উত্তীর্ণদের মাঝে যথাক্রমে ৬০ হাজার, ৫০ হাজার এবং ৪৫ হাজার সৌদি রিয়াল পুরস্কার প্রদান করা হয়।

সংখ্যালঘু দেশের তাজবিদসহ ৫ পারা গ্রুপ
এ প্রতিযোগিতায় সংখ্যালঘু দেশের প্রতিযোগিদের জন্য আলাদা ইভেন্টের ব্যবস্থা ছিল। তাজবিদ সহকারে ৫ পারা কুরআন হেফজ বিভাগে সংখ্যালঘু দেশের প্রতিনিধিরা অংশগ্রহণ করেন। এ গ্রুপে প্রথম স্থান লাভ করেন সার্বিয়ার প্রতিনিধি আমিন সামির হামেদি, দ্বিতীয় হন বসনিয়া-হার্জেগোভিনার ওমর ফারুক এবং তৃতীয় হন শ্রীলঙ্কার প্রতিনিধি আহমাদ হালিম ইবনে মুহাম্মাদ।

পুরস্কার : এই বিভাগে শীর্ষ ৩ প্রতিযোগির মাঝে যথাক্রমে ৬০ হাজার, ৩০ হাজার এবং ২০ হাজার সৌদি রিয়াল পুরস্কার প্রদান করা হয়।

এমএমএস/জেআইএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]