রবিউল আউয়ালের অঙ্গীকার

ধর্ম ডেস্ক
ধর্ম ডেস্ক ধর্ম ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৯:২৬ এএম, ০৯ অক্টোবর ২০২১

আজ শুরু হলো ১৪৪৩ হিজরির রবিউল আউয়াল মাস। মুসলিম উম্মাহর কাছে মাসটি ব্যাপক পরিচিত ও মর্যাদার। হিজরি বছরের তৃতীয় মাস বরিউল আউয়াল। সফর ও রবিউস সানির মধ্যবর্তী মাস। মুমিন মুসলমানের বিশেষ অঙ্গীকার বাস্তবায়নের মাসও এটি। আহলান ওয়া সাহলান... মাহে রবিউল আউয়াল।

বিশ্বব্যাপী রবিউল আউয়াল মাসটি হজরত মুহাম্মাদুর রাসুলু্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামের শুভ জন্মগ্রহণের মাস হিসেবে ব্যাপক পরিচিত। এ কারণেই মাসটি মুসলিম উম্মাহর সর্বোচ্চ আবেগ অনুভূতি ও ভালাবাসার মাস। তাইতো কবি একান্ত আবেগ ও ভালোবাসায় গান রচনা করেছে এভাবে-
রবিউল আউয়াল এসেছে ..
শান্তি সুখের চাঁদ হেসেছে।
আল্লাহর ধ্যানের ছবি এসেছে ...
আমার প্রাণের নবি এসেছে।

হিজরি বছরের তৃতীয় মাস রবিউল আউয়াল। ভারতীয় উপমহাদেশসহ বিশ্বের অনেক দেশের মুসলমান প্রিয় নবি সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামের জন্ম ও ইন্তেকালের মাস হিসেবে রবিউল আউয়াল মাসের প্রতি শ্রদ্ধা ও ভালোবাসার আবেগে আপ্লুত। তাই তো মুসলিম উম্মাহ মাসব্যাপী নানা নাম-শিরোনামে আলোচনাসভা, সেমিনার-সিম্পোজিয়াম, সভা-সমাবেশ ও দোয়া-মাহফিল আয়োজন করে থাকেন। তাহলো-

ঈদে মিলাদুলাদুন্নবী
বাংলাদেশসহ অনেক দেশেই রাষ্ট্রীয়ভাবে সপ্তাহ, পক্ষ ও মাসব্যাপী রবিউল আউয়াল উপলক্ষ্যে বিভিন্ন অনুষ্ঠান আয়োজন করে থাকে। প্রিয় নবি সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামের জন্ম উৎসব হিসেবে ১২ রবিউল আউয়াল বিশেষ অনুষ্ঠান আয়োজন করা হয়। আবার রাষ্ট্রীয়ভাবে সবার জন্য থাকে সাধারণ ছুটি। মাসটিতে ইসলামি বইমেলাসহ নানা কর্মসূচিও গ্রহণ করে অনেক দেশ।

উসওয়াতুন্নবী
রবিউল আউয়াল মাসটি বাংলাদেশসহ বিশ্বের অনেক স্থানে উসওয়াতুন্নবী শিরোনামে উদযাপিত হয়। মাসব্যাপী প্রিয় নবি সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামের পুরো জীবনী আলোচনা ও দোয়া-মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়। মুসলিম উম্মাহকে প্রিয় নবি সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামের সুমহান আদর্শে গড়ে তুলতে উসওয়াতুন্নবী শীর্ষক অনুষ্ঠানে ‘খাস তালিম’-এর মাধ্যমে বাস্তবমুখী শিক্ষা প্রদানেরও উদ্যোগ নেওয়া হয়।

সীরাতুন্নবী
কেউ কেউ মাসব্যাপী প্রিয় নবি সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামের জন্ম, বেড়ে ওঠা, নবুয়ত, হিজরত, রাষ্ট্রগঠন, ব্যক্তিজীবন, পারিবারিক জীবন, রাজনৈতিক জীবন, আন্তর্জাতিক জীবন, সমাজ সংস্কারসহ জন্ম থেকে ইন্তেকাল পর্যন্ত জীবনের বিভিন্ন দিক ও বিষয় নিয়ে সীরাতুন্নবি শিরোনামে অনুষ্ঠান উদযাপন করে থাকেন।

এছাড়া কেউ কেউ মাজিউন্নবী আবার কেউ কেউ ৬৩দিন ব্যাপী ঈদে মিলাদুন্নবী শীর্ষক আলোচনা সভাও অব্যাহ রাখে। যা রবিউল আউয়াল মাসে শুরু হয়।

আফসোসের বিষয়!
রবিউল আউয়াল মাস আসলেই মুসলিম উম্মাহ প্রিয় নবি সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামের প্রেম, আবেগ-ভালোবাসায় উজ্জীবিত হয়। আবার মাসটি চলে গেলে সে আবেগ-অনুভূতি ও ভালোবাসা আর থাকে না। তাইতো কবি নজরুল এ অনুভূতি ধারণ করে বলেছিলেন-
‘রবিউল আউয়াল এলে তোমারই গান গাই; রবিউল আউয়াল গেলে তোমায় ভুলে যাই’

কবির এ ছন্দটি মুসলিম উম্মাহর জন্য একটি গুরুত্বপূর্ণ সতর্কবার্তা। এমনটি যেন কোনোভাবেই না হয়। বরং মাসব্যাপী এসব অনুষ্ঠান আয়োজনকে বাস্তবে রূপ দিতে শুধু বছরব্যাপী নয় বরং জীবনব্যাপী প্রিয় নবি সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামের সুমহান আদর্শ নিজেদের জীবনে ধারণ করা জরুরি।

কারণ প্রিয় নবি সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামের জীবনেই রয়েছে মানবজাতির জন্য সর্বোত্তম অনুকরণীয় আদর্শ। আর এ ঘোষণা দিয়েছেন স্বয়ং আল্লাহ-
لَقَدْ كَانَ لَكُمْ فِي رَسُولِ اللَّهِ أُسْوَةٌ حَسَنَةٌ لِّمَن كَانَ يَرْجُو اللَّهَ وَالْيَوْمَ الْآخِرَ وَذَكَرَ اللَّهَ كَثِيراً
‘অবশ্যই রাসুলুল্লাহর জীবনে রয়েছে তোমাদের জন্য সর্বোত্তম আদর্শ; যারা আল্লাহ ও শেষ দিনের প্রতি (বিশ্বাস ও কল্যাণের) আশা রাখে এবং আল্লাহকে অধিক স্মরণ করে।’ (সুরা আহজাব : আয়াত ২১)

সুতরাং বিশ্ব মানবতার প্রতি রবিউল আউয়ালের ডাক হোক এমন-
জীবনের প্রতিটি ক্ষেত্রে প্রিয় নবি সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামের আদর্শ বাস্তবায়ন করা। অন্যকে এ আদর্শ ধারণে অনুপ্রাণিত ও চেষ্ট করাও উম্মতে মুহাম্মাদির ঈমানি দায়িত্ব। আর তাতেই স্বার্থক হবে উসওয়াতুন্নবি বা বিশ্বনবি সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামের আদর্শ বাস্তবায়নের সব অনুষ্ঠান আয়োজন।

আর যারাই নানা শিরোনামে মাসটি উদযাপন করবেন, তাদের প্রতি আহ্বান-
মাসব্যাপী ঈদে মিলাদুন্নবী, উসওয়াতুন্নবী, সীরাতুন্নবী, মাজিউন্নবী শীর্ষক অনুষ্ঠান ও মাহফিলে প্রিয় নবি সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামের সব আদর্শগুলো তুলে ধরা। কুরআন-সুন্নাহর মোতাবেক পরিচালিত প্রিয় নবির জীবনকে বিশ্ব মানবতার জন্য মডেল হিসেবে তুলে ধরা। ব্যক্তি সমাজ পরিবার রাষ্ট্র ও আন্তর্জাতিক অঙ্গনে প্রিয় নবি সুমহান আদর্শ বাস্তবায়নের যথাযথ ভূমিকা গ্রহণ করা।

বিশ্বনবি সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামের অতুলনীয় সুমহান আদর্শ নিজেদের জীবনে বাস্তবায়ন এবং অন্যদের জীবনেও বাস্তবায়নের আহ্বান ও প্রচেষ্টাই মুসলিম উম্মাহর রবিউল আউয়ালে মাসের অঙ্গীকার। আমিন।

এমএমএস/এএসএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]