হজরত আছিয়া যে দোয়া করেছিলেন

ইসলাম ডেস্ক
ইসলাম ডেস্ক ইসলাম ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৪:৩২ পিএম, ১৫ জানুয়ারি ২০২২

ফেরআউনের স্ত্রী হজরত আছিয়া ছিলেন একজন ঈমানদার নারী। সময়ের সব চেয়ে বড় কাফেরের অধীনে ছিলেন স্ত্রী আছিয়া। কিন্তু সে তার স্ত্রীকে ঈমান আনতে বাধা দিতে পারেনি। তিনি ফেরআউনের নির্যাতনে ঈমানহারা হননি বরং তিনি আল্লাহর কাছে দোয়া করেছিলেন। দোয়াটি মুসলিম উম্মাহর জন্য অনুকরণীয় শিক্ষা। আল্লাহ তাআলা দোয়াটি কোরআনুল কারিমে তুলে ধরেছেন। ফেরাউনের অত্যাচার নির্যাতনে হজরত আছিয়া আল্লাহর কাছে কী চেয়েছিলেন?

হজরত আছিয়া ইসলাম ও মুসলমানদের জন্য অনন্য এক দৃষ্টান্ত। কুফরির দাপট ও প্রভাব ঈমানদারদের কিছুই করতে পারবে না-এ উজ্জ্বল দৃষ্টান্ত তিনি। আল্লাহর কাছে হজরত আছিয়ার দোয়া-

رَبِّ ابۡنِ لِیۡ عِنۡدَکَ بَیۡتًا فِی الۡجَنَّۃِ وَ نَجِّنِیۡ مِنۡ فِرۡعَوۡنَ وَ عَمَلِهٖ وَ نَجِّنِیۡ مِنَ الۡقَوۡمِ الظّٰلِمِیۡنَ

উচ্চারণ : ‘রাব্বিনি লি ইংদাকা বাইতান ফিল-জান্নাতি ওয়া নাঝঝিনি মিন ফিরআউনা ওয়া আমালিহি ওয়া নাঝঝিনি মিনাল ক্বাওমিজ জ্বালিমিনি।’

অর্থ : ‘হে আমার প্রভু! আপনার কাছে আমার জন্য জান্নাতে একটি ঘর নির্মাণ করুন এবং আমাকে ফেরআউন ও তার (কুফরির) কর্ম থেকে নাজাত দিন; আর আমাকে জালিম সম্প্রদায় থেকেও মুক্তি দিন।’ (সুরা তাহরিম : আয়াত ১১)

ঈমানদারদের জন্য দৃষ্টান্ত উপস্থাপন

আল্লাহ তাআলা আয়াতটি মুসলিম উম্মাহর সব বিশ্বাসীদের জন্য দৃষ্টান্ত স্বরূপ উপস্থাপন করেছেন। যাতে তারা শত বাধা-বিপত্তির মাঝেও ইসলামের ওপর অটল ও অবিচল থাকতে পারেন। আর আল্লাহর কাছে এভাবে প্রার্থনা করতে পারেন। কোরআনে আল্লাহ তাআলা দৃষ্টান্তটি এভাবে তুলে ধরেছেন-

وَ ضَرَبَ اللّٰهُ مَثَلًا لِّلَّذِیۡنَ اٰمَنُوا امۡرَاَتَ فِرۡعَوۡنَ ۘ اِذۡ قَالَتۡ رَبِّ ابۡنِ لِیۡ عِنۡدَکَ بَیۡتًا فِی الۡجَنَّۃِ وَ نَجِّنِیۡ مِنۡ فِرۡعَوۡنَ وَ عَمَلِهٖ وَ نَجِّنِیۡ مِنَ الۡقَوۡمِ الظّٰلِمِیۡنَ

আল্লাহ বিশ্বাসীদের জন্য উপস্থিত করেছেন ফিরআউনের স্ত্রীর দৃষ্টান্ত। যে (প্রার্থনা করে) বলেছিল- ‘হে আমার প্রভু! আপনার কাছে জান্নাতে আমার জন্য একটি ঘর নির্মাণ করুন এবং আমাকে উদ্ধার করুন ফেরআউন ও তার দুষ্কর্ম থেকে। আর আমাকে উদ্ধার করুন জালেম সম্প্রদায় থেকে।’ (সুরা তাহরিম : আয়াত ১১)

সুতরাং মুমিন মুসলমান মাত্র মহান আল্লাহর কাছে হজরত আছিয়ার এ দোয়াটি বেশি বেশি করা জরুরি। কারণ যুগে যুগে ফেরআউনের অনুসারিরা দুনিয়ায় ছিল, আছে এবং থকবে। তাদের দুষ্কর্ম ও অত্যাচারীদের থেকে নিজেদের নিরাপদ রাখতে আল্লাহর কাছে এ দোয়া করা আল্লাহর নির্দেশের অন্তর্ভূক্ত।

আল্লাহ তাআলা মুসলিম উম্মাহকে তাঁর কাছে জান্নাতে ঘর ও ফেরআউনের মতো দুষ্কর্ম ও অত্যাচারীদের থেকে আত্ম-রক্ষায় দোয়াটি পড়ার তাওফিক দান করুন। হজরত আছিয়ার মতো শত নির্যাতন ও অত্যাচারে ঈমানের ওপর অটল ও অবিচল থাকার তাওফিক দান করুন। আমিন।

এমএমএস/এএসএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]