উৎসবের জন্য বন্ধ করে দেয়া হয় মসজিদের আজান ও নামাজ!

ধর্ম ডেস্ক
ধর্ম ডেস্ক ধর্ম ডেস্ক
প্রকাশিত: ১১:২১ এএম, ০৩ জুলাই ২০১৯

মসজিদ আল ইবরাহিমি বা ইবরাহিমি মসজিদ। যুদ্ধ বিধ্বস্ত দেশ ফিলিস্তিনের পশ্চিম তীরে অবস্থিত। বছরের বিভিন্ন সময়ই মসজিদটিতে আজান দেয়া ও নামাজ পড়া বন্ধ করে দেয় ইসরাইলি সেনাবাহিনী।

ফিলিস্তিনি ওয়াক্ফ মন্ত্রণালয়ের এক তথ্য বিবরণী থেকে জানা যায় যে, জানুয়ারি ২০১৯ থেকে জুন পর্যন্ত গত ৬ মাসে মসজিদটিতে ২৯৪ বার আজানে বাধা দেয়া হয়েছে। গত এপ্রিলেও একাধারে কয়েকটি নামাজও বন্ধ রাখা হয়েছিল।

ইসরাইলি কর্তৃপক্ষ তাদের সেনাবাহিনী দ্বারা হজরত ইবরাহিম আলাইহিস সালামের স্মৃতি বিজড়িত এ পবিত্র মসজিদটিতে আজান ও নামাজ পড়ায় প্রতিনিয়ত বাধা দিয়ে থাকে। তাদের যে কোনো অনুষ্ঠানের সময় মসজিদে আজান দেয়া তো দূরের কথা, নামাজই বন্ধ করে দেয়া হয়।

দখলদার ইসরাইলি সেনাবাহিনী ও ইয়াহুদিরা তাদের বিভিন্ন উৎসব উপলক্ষে টানা কয়েক দিন পর্যন্ত এ মসজিদ আজান ও নামাজ বন্ধ করে দেয়।

Mosjid

উল্লেখ্য যে, ইবরাহিমি মসজিদটি ‘ দুই সমাধির গুহা’ তথা কেভ অফ দ্য পেট্রিয়ার্ক‌ বা আল-হারাম আল-ইবরাহিমি নামেও পরিচিত। এটি ফিলিস্তিনের পশ্চিম তীরে পুরাতন হেবরন (আল-খলিল) শহরের মধ্যস্থলে হেবরন পাহাড়ে অবস্থিত।

উইকিপিডিয়ার তথ্য মতে, ‘তাওরাত ও কুরআনের সঙ্গে সম্পর্কিত লোককথা অনুযায়ী হজরত ইবরাহিম আলাইহিস সালাম ‘ইবরাহিমি মসজিদ’-এর স্থান ও পার্শ্ববর্তী পাহাড় ও জমি তার দাফনের জন্য ক্রয় করেছিলেন।

এমএমএস/জেআইএম