ওমরা ভিসায় সৌদি আরব ভ্রমণের সুযোগ!


প্রকাশিত: ১১:১৫ এএম, ০৫ মে ২০১৬

ওমরা ভিসা মানে পবিত্র নগরী মক্কা ও মদিনা যিয়ারাত। এর বাইরে অন্য কোথাও যাওয়ার কোনো সুযোগ নেই। এ আইন আরব দেশগুলোর বাইরে সব দেশের জন্য প্রযোজ্য ছিল। সম্প্রতি দেশটির বর্তমান বাদশাহ সালমানেরর ছেলে প্রিন্স সুলতান বিন সালমান ঘোষণা দেন যে, ওমরা ভিসায় এসে সমগ্র সৌদি আর ভ্রমণ করা যাবে। তিনি সৌদি আরবের টুরিজম এবং ন্যশনাল হেরিটেজ কমিশনের চেয়ারম্যান। খবর আরব নিউজ।

Omrah

প্রিন্স সুলতান বিন সালমান ওমরা পরবর্তী সৌদি আরব ভ্রমণের জন্য ‘পোস্ট ওমরা প্রোগ্রাম’ নামক নতুন কর্মসূচির ঘোষণা দেন। এতে করে আরব দেশগুলোর বাহিরের অন্যান্য সকল দেশের মুসলমানগণ সমগ্র সৌদি আরব ঘুরে দেখার অনেক দিনের আশা-আকাঙ্ক্ষার প্রতিফলন ঘটবে।

Omrah

এ কর্মসূচি ঘোষণার পূর্বে এ নিয়ে অনেক গবেষণা হয়। গবেষণার রিপোর্টের ভিত্তিতেই প্রিন্স সুলতান বিন সালমান ‘পোস্ট ওমরা প্রোগ্রাম’ কর্মসূচি ঘোষণা করেন।

রিয়াদের এক অনুষ্ঠান শেষে প্রেস ব্রিফিংয়ে প্রিন্স জানান যে, ওমরা পালনকারীদের জন্য সৌদি আরবের ল্যান্ডমার্ক বিশেষ করে ইসলামের ঐতিহাসিক নগর ও স্থাপনাগুলো দেখার সুযোগ সৃষ্টিতে এ কর্মসূচির উদ্যোগ নেয়া হয়। সেখানে তারা ভ্রমণের আকর্ষণীয় স্থাপনা এবং শপিংমলগুলো দেখার সুযোগ পাবেন।

Omrah

ওমরা পালনকারীরা সৌদি আরবের সংস্কৃতির সঙ্গে পরিচিত হওয়া ছাড়াও ইচ্ছা করলে সে দেশের চিকিৎসা, শিক্ষা ও কেনা-কাটা করতে পারবেন। সেখানে অনুষ্ঠিত যে কোনো সেমিনার- সিম্পোজিয়াম ও প্রদর্শণীতেও অংশ গ্রহণ করতে পারবেন।

Omrah

তবে ওমরা পালনকারীদের ভিসাকে কিভাবে ভ্রমণ ভিসা রূপান্তর করা হবে তা এখনো চূড়ান্ত হয়নি জানিয়ে প্রিন্স আরো বলেন, ভ্রমণ কর্মসূচিটি সহজ ও আকর্ষণীয় করতে ট্যুরিজম এবং ন্যাশনাল হেরিটেজ কমিশন দেশটির স্বরাষ্ট্র, পররাষ্ট্র এবং হজ মন্ত্রণালয়ের সঙ্গে গুরুত্ব সহকারে কাজ করে যাচ্ছেন।

সৌদি আরবে ওমরার সঙ্গে ভ্রমণ ভিসা চালু হলে মুসলিম বিশ্বের জন্য এক নতুন দিগন্তের দ্বার উন্মোচিত হবে- এই প্রত্যাশায়।

এমএমএস/পিআর

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]