নতুন কোচ খুঁজে নিয়েছে শ্রীলঙ্কা, ঝুলছে হাথুরুর ভাগ্য

স্পোর্টস ডেস্ক
স্পোর্টস ডেস্ক স্পোর্টস ডেস্ক
প্রকাশিত: ১০:৪২ এএম, ০৪ ডিসেম্বর ২০১৯

আগামী দুই বছরের জন্য নিজেদের নতুন হেড কোচ খুঁজে নিয়েছে শ্রীলঙ্কান ক্রিকেট বোর্ড। দক্ষিণ আফ্রিকা ও পাকিস্তানের সাবেক কোচ মিকি আর্থার এবার দায়িত্ব পালন করবেন লঙ্কান ক্রিকেট দলের প্রধান কোচ হিসেবে। শীঘ্রই তাকে কোচ হিসেবে নিয়োগ দেয়ার আনুষ্ঠানিক ঘোষণা দেবে লঙ্কান বোর্ড।

আর্থুরের সঙ্গে শ্রীলঙ্কার কোচিং প্যানেলে যোগ দেবেন আরও তিন নতুন স্টাফ। তারা হলেন গ্র্যান্ট ফ্লাওয়ার, ডেভিড সাকের ও শেন ম্যাকডেরমট। ব্যাটিং কোচ হিসেবে ফ্লাওয়ার, বোলিং কোচ হিসেবে সাকের ও ফিল্ডিং কোচ হিসেবে ম্যাকডেরমটকে নিয়োগ দিচ্ছে শ্রীলঙ্কা। পুরো কোচিং প্যানেলই দুই বছরের জন্য চুক্তিবদ্ধ হবে।

গত ৮ বছরে শ্রীলঙ্কান ক্রিকেট দলের ১১তম হেড কোচ হচ্ছেন আর্থার। এর আগে তিনি ছিলেন পাকিস্তানের হেড কোচ। এবার শ্রীলঙ্কার হয়ে তার প্রথম অ্যাসাইনমেন্টই পাকিস্তানের বিপক্ষে। তাকে সহায়তা অন্তর্বর্তীকালীন কোচ রমেশ রত্নায়েকেও থাকবেন দলের সঙ্গে।

এদিকে আর্থারকে পূর্ণ মেয়াদে কোচ নিয়োগ দেয়ার ফলে এখন ঝুলে গেছে চন্ডিকা হাথুরুসিংহের ভাগ্য। বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দলের প্রধান কোচের দায়িত্ব থেকে পদত্যাগ করেই শ্রীলঙ্কার হাল ধরেছিলেন হাথুরুসিংহে। কিন্তু সেখানে বেশিদিন স্বাধীনতা নিয়ে কাজ করতে পারেননি তিনি। দেশটির ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রীর প্রত্যক্ষ নজরদারিতে থেকে বেশ কঠিনই হয়ে পড়েছিল হাথুরুর লঙ্কান কোচিং অধ্যায়।

এরপর ওয়ানডে বিশ্বকাপে শ্রীলঙ্কার ভরাডুবির দায় নিয়েই ফিরতে হয় দেশে। শোনা যাচ্ছিল, তাকে বরখাস্তই করে দেবে লঙ্কান ক্রিকেট বোর্ড। কিন্তু তা না করে, হাথুরুর সঙ্গে চুক্তি বহাল রেখেই অন্তর্বর্তীকালীন কোচ হিসেবে রমেশ রত্নায়েকের নাম প্রকাশ করে তারা।

আর এবার পূর্ণ মেয়াদে মিকি আর্থুরের সঙ্গে দুই বছরের চুক্তি করার পরেও হাথুরুর সঙ্গে চুক্তি বাতিল করেনি শ্রীলঙ্কা। যার ফলে এখনও 'দপ্তরবিহীন মন্ত্রী'র মতো শ্রীলঙ্কার কাজহীন কোচ হিসেবে থাকছেন হাথুরুসিংহে।

এসএএস/জেআইএম