অবসর নিয়ে ‘স্কুল ছাড়ার অনুভূতি’ পাচ্ছেন নাফীস

ক্রীড়া প্রতিবেদক ক্রীড়া প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৪:৫৩ পিএম, ১৩ ফেব্রুয়ারি ২০২১

মাঠে আর ব্যাট হাতে নামতে দেখা যাবে না বাংলাদেশ দলের বাঁ-হাতি টপঅর্ডার ব্যাটসম্যান শাহরিয়ার নাফীসকে। শনিবার মিরপুর শেরে বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামের মিডিয়া সেন্টারের সামনে আয়োজিত অনুষ্ঠানে আনুষ্ঠানিকভাবে ক্রিকেটকে বিদায়ের সিদ্ধান্ত জানিয়েছেন নাফীস।

ক্রিকেট ওয়েলফেয়ার অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (কোয়াব) এর আয়োজিত এই অনুষ্ঠানের মাধ্যমে নাফীসের সঙ্গে আনুষ্ঠানিকভাবে বিদায়ের কথা জানিয়েছেন বাঁ-হাতি স্পিনার আব্দুর রাজ্জাকও। বিসিবি ও কোয়াবের পক্ষ থেকে তাদের হাতে তুলে দেয়া হয়েছে সম্মাননা স্মারক।

অবসর নেয়ার পর লিখিত বক্তব্যে নাফীস ধন্যবাদ দিয়েছেন তার ক্যারিয়ারের শুরু থেকে এখনও পর্যন্ত সংশ্লিষ্ট সকল ব্যক্তিকে। পরে সংবাদমাধ্যমের সঙ্গে আলাপে তিনি জানিয়েছেন, অন্যরকম অনুভূতি হচ্ছে তার। যা কি না স্কুল ছেড়ে দেয়ার মতোই।

খেলা ছেড়ে দেয়ার পর নিজের অনুভূতির কথা জানাতে গিয়ে নাফীস বলেন, ‘একটু কঠিন। গতকাল থেকেই চিন্তাভাবনা করছিলাম। আমি খেলব না- তাতে খুব কষ্ট লাগছে না, তবে অনুভূতিটা কেমন অদ্ভুত যেনো। আমি একটা স্কুলে পড়লাম, স্কুল ছেড়ে দিচ্ছি- ওরকম অনুভূতি। খুবই অদ্ভুত। আমি সবসময় সব সিদ্ধান্ত ভেবেচিন্তে নিয়েছি, পরিস্কার করে।’

অবসরের সিদ্ধান্তের ব্যাপারে তিনি বলেন, ‘আমি চিন্তা করেছি যখন একজন খেলোয়াড় হিসেবে আর অবদান রাখতে পারব না, তবে সবসময় বলেছি আমি ক্রিকেটের সাথেই থাকব। আমার কাছে মনে হয়েছে এটাই সঠিক সময়। কারণ খেলে যতটুকু অবদান রাখতে পারব তার চেয়ে বেশি এখন পারব। এজন্য সিদ্ধান্ত নেওয়া কঠিন হয়নি।’

ক্রিকেটার হিসেবে ক্যারিয়ারের ইতি টানলেও ক্রিকেটের সঙ্গেই থাকছেন নাফীস। বিসিবির ক্রিকেট অপারেশনস কমিটির ডেপুটি ম্যানেজার হিসেবে দায়িত্ব পাচ্ছেন তিনি।

নাফীসের মতে নিজের প্রাপ্যটাই পেয়েছেন তিনি, ‘অহংকার করে বলছি না, আমি ধর্মপ্রাণ একজন মুসলমান। আমি ভাগ্যে বিশ্বাস করি। আমি বিশ্বাস করি- আমার সেরা যেটা ছিল আল্লাহ তাই দিয়েছেন। আমার কোনো অতৃপ্তি নেই।’

নিজের নতুন দায়িত্বের ব্যাপারে এখনও পুরোপুরি ধারণা পাননি নাফীস। তবে কাজে যোগ দেয়ার পর এ সম্পর্কে পুরোপুরি বুঝতে পারবেন জানিয়ে তিনি বলেন, ‘বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডে যুক্ত হতে চলেছি ইনশাআল্লাহ। যোগ দেওয়ার পর কাজের পরিধি, কতটুকু করতে পারব বা পারব না সেটা তখন বুঝব। এখন এ ব্যাপারে মন্তব্য করার সঠিক সময় নয়।’

আনুষ্ঠানিক ঘোষণার মাধ্যমে বিদায় নিতে পারার তৃপ্তি প্রকাশ করে নাফীস বলেন, ‘আমাদের চেয়েও বড় অনেক ক্রিকেটারের এই সৌভাগ্য হয়নি। বিসিবি ও কোয়াবকে ধন্যবাদ এরকম একটা আয়োজনের জন্য। যদি করোনা না থাকত আমরা খেলে বিদায় নিতে পারতাম। তারপরও আমাদের জন্য যতটুক করেছে আমরা কৃতজ্ঞ।’

উল্লেখ্য, দেশের ক্রিকেটের সবসময়ের অন্যতম সফল ওপেনার শাহরিয়ার নাফীস ২৪ টেস্টে এক সেঞ্চুরি, ৭ হাফ সেঞ্চুরিসহ ১২৬৭ রান করেন। ৭৫ ওয়ানডেতে তার রয়েছে ৪টি সেঞ্চুরি এবং ১৩টি হাফ সেঞ্চুরি, রান ২২০১। দেশের হয়ে ১টি-টোয়েন্টিও খেলেছেন নাফীস, যেখানে তিনি করেছেন ২৫ রান।

এসএএস/আইএইচএস/এমকেএইচ

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]