রিমান্ডে গুরুত্বপূর্ণ তথ্য দিয়েছেন আরাফাত সানি


প্রকাশিত: ০৮:১৮ এএম, ২৪ জানুয়ারি ২০১৭
ফাইল ছবি

তথ্য-প্রযুক্তি আইনে দায়ের করা মামলায় একদিনের রিমান্ডে নেয়ার পর জাতীয় দলের ক্রিকেটার আরাফাত সানির কাছে গুরুত্বপূর্ণ তথ্য পেয়েছে পুলিশ। অবশ্য মামলার সঠিক তদন্তের স্বার্থে গুরুত্বপূর্ণ সে তথ্যের বিষয়ে কিছু বলতে রাজি হননি তদন্ত কর্মকর্তা।

রোববার আরাফাত সানিকে ঢাকা সিএমএম আদালতে হাজির করে মামলার সুষ্ঠু তদন্তের জন্য পাঁচদিনের রিমান্ড আবেদন করেন মামলার তদন্ত কর্মকর্তা মোহাম্মদপুর থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) ইয়াহিয়া। শুনানি শেষে ঢাকা মহানগর হাকিম প্রণব কুমার হুই একদিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন।

এরপর সোমবার তাকে মোহাম্মদপুর থানায় রিমান্ডে নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করেন তদন্ত কর্মকর্তা মোহাম্মদপুর থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) ইয়াহিয়া। জিজ্ঞাসাবাদে তার কাছে গুরুত্বপূর্ণ তথ্য পাওয়া গেছে বলে জাগো নিউজকে জানিয়েছেন তিনি।

তিনি মঙ্গলবার জাগো নিউজকে বলেন, আরাফাত সানিকে রিমান্ডে নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করলে তিনি গুরুত্বপূর্ণ তথ্য প্রদান করেন। মামলার তদন্ত শেষ না হওয়া পর্যন্ত এ বিষয়ে কোনো কিছুই বলা যাবে না।

এর আগে রোববার সকালে আমিনবাজার এলাকা থেকে আরাফাত সানিকে গ্রেফতার করে মোহাম্মদপুর থানা পুলিশ।

সানির বিরুদ্ধে মোট দুটি মামলা করেন এক তরুণী। একটি তথ্য-প্রযুক্তি আইনে ও একটি যৌতুক আইনে।

তথ্য-প্রযুক্তি আইনের মামলার এজাহারে অভিযোগ করা হয়েছে, আরাফাত সানির সঙ্গে ওই তরুণীর ২০১৪ সালের ৪ ডিসেম্বর বিয়ে হয়। গত বছরের ১২ জুন আরাফাত দুজনের কিছু ব্যক্তিগত ছবি ও ওই তরুণীর কিছু আপত্তিকর ছবি ফেসবুকের ম্যাসেঞ্জারে পাঠান। ছবি পাঠিয়ে আরাফাত সানি ওই তরুণীকে হুমকি দেন। পরে আবার ২৫ নভেম্বর ওই তরুণীকে আপত্তিকর ছবি পাঠিয়ে হুমকি দেন আরাফাত সানি।

নাসরিন সুলতানা নামে ওই তরুণী বাদী হয়ে ৫ জানুয়ারি রাজধানীর মোহাম্মদপুর থানায় তথ্য-প্রযুক্তি আইনে একটি মামলা করেন।

জেএ/এনএফ/এমএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]