প্রবাসীর স্ত্রীর সঙ্গে দেখা করতে গিয়ে যুবক ধরা

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি পাবনা
প্রকাশিত: ০৯:২৯ পিএম, ২০ জুলাই ২০১৮
ফাইল ছবি

পাবনার ভাঙ্গুড়া উপজেলায় প্রবাসীর স্ত্রীর সঙ্গে গোপনে দেখা করতে গিয়ে রবিউল ইসলাম (৩৫) নামে যুবক ধরা পড়েছেন। তাকে গণধোলাই দিয়ে পুলিশে সোপর্দ করেছে এলাকাবাসী। বৃহস্পতিবার রাতে গভীর রাতে ভাঙ্গুড়া পৌর সদরের সারুটিয়া মহল্লায় এ ঘটনা ঘটে।

পরে আটক রবিউল ইসলাম বিরুদ্ধে কেউ মামলা না করায় তাকে পৌরসভার প্যানেল মেয়র আব্দুর রহিমের জিম্মায় দিয়ে বিষয়টি সালিশের মাধ্যমে মীমাংসা করার পরামর্শ দেয় থানা পুলিশ। প্যানেল মেয়র শুক্রবার বিকেলে নাম মাত্র সালিশ করে বিষয়টি ধামাচাপা দিয়েছেন বলে অভিযোগ উঠেছে।

স্থানীয় ও পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, ভাঙ্গুড়া পৌর সদরের সারুটিয়া মহল্লার মালয়েশিয়া প্রবাসী আলাল উদ্দিন ৬/৭ বছর আগে দেশের বাইরে চলে গেলে তার স্ত্রী প্রতিবেশী দুই সন্তানের জনক রবিউলের সঙ্গে পরকীয়া প্রেমে জড়িয়ে পড়েন। এরই ধারাবাহিকাতয় বৃহস্পতিবার রাতে রবিউল ওই গৃহবধূর বাড়িতে দেখা করতে গেলে আলালের ছোট ভাই আলফাজ টের পেয়ে প্রতিবেশীদের সহযোগিতায় তাকে আটক করে মারধর করেন। পরে স্থানীয়রা পুলিশকে খবর দিলে পুলিশ রবিউলকে উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে। পরে কেউ মামলা না করায় রাত ১২টার দিকে তাকে প্যানেল মেয়রের জিম্মায় ছেড়ে দেয়া হয়। প্যানেল মেয়র শুক্রবার বিকেলে নাম মাত্র সালিশ করে বিষয়টি ধামাচাপা দিয়েছেন।

এলাকাবাসী জানায়, রবিউল ও ওই নারী একাধিকবার অবৈধ মেলামেশার সময় স্থানীয়দের হাতে আটক হয়। পরে স্থানীয়ভাবে তা আপোষ-মীমাংসা করা হয়।

ভাঙ্গুড়া থানা পুলিশের ওসি (তদন্ত) সিদ্দিকুল ইসলাম আসিফ ঘটনার সত্যতা স্বীকার করেছেন।

এ বিষয়ে প্যানেল মেয়র আব্দুর রহিম জানান, উভয়পক্ষকে নিয়ে আলোচনা করে শান্তির লক্ষে কাউকে শাস্তি বা জরিমানা করা হয়নি।

এ কে জামান/আরএআর/এমএস

আপনার মতামত লিখুন :