৫ বছরেই অবৈধ সম্পদের পাহাড় তার

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি পাবনা
প্রকাশিত: ০৯:৪৬ পিএম, ১৬ অক্টোবর ২০১৮

২ কোটি ৩৮ লাখ ১৪ হাজার ৯২৫ টাকার অবৈধ সম্পদ হাতিয়ে নেয়ায় পাবনা সদর সাব-রেজিস্ট্রার মো. ইব্রাহিম আলীর বিরুদ্ধে মামলা করেছে দুদক।

দুদক সমন্বিত পাবনা কার্যালয়ের সহকারী পরিচালক গোলাম মাওলা বাদী হয়ে ঢাকা মহানগর পুলিশ (ডিএমপি) দারুস সালাম থানায় সোমবার এ মামলা করেন।

মামলার বাদী শেখ গোলাম মাওলা জানান, অনুসন্ধানকালে প্রাপ্ত রেকর্ডপত্র পর্যালোচনায় দেখা যায় সাব-রেজিস্ট্রার মো. ইব্রাহিমের মোট ৩ কোটি ১২ লাখ ৬৫ হাজার ৫০২ টাকার সম্পদ রয়েছে। এর মধ্যে ২ কোটি ৩৮ লাখ ১৪ হাজার ৯২৫ টাকার অবৈধ সম্পদ দুর্নীতির মাধ্যমে হাতিয়ে নিয়েছেন। যা শাস্তিযোগ্য অপরাধ। ইব্রাহিম আলী ২০০৯ সালে সাব-রেজিস্ট্রার পদে চাকরিতে যোগ দেন। ২০১৩ থেকে ২০১৮ সালের মধ্যে এই অবৈধ সম্পদ হাতিয়ে নেন সাব-রেজিস্ট্রার ইব্রাহিম। পাঁচ বছরে এই অবৈধ সম্পদের পাহাড় গড়েন তিনি।

দুদকের সহকারী পরিচালক গোলাম মাওলা আরও বলেন, নিজের নামে এবং মেয়ের নামে এসব সম্পদ রেজিস্ট্রি করেন ইব্রাহিম। প্রাথমিক তদন্তে ঘুষ ও দুর্নীতির প্রমাণ পাওয়ায় দুর্নীতি দমন কমিশন আইন-২০০৪ এর ২৭ (১) ধারা এবং মানি লন্ডারিং প্রতিরোধ আইন-২০১২ এর ৪(২) ধারায় ইব্রাহিম আলীর বিরুদ্ধে মামলা করা হয়।

অনুসন্ধান তদারকি কর্মকর্তা দুদক পাবনা অফিসের উপ-পরিচালক মো. আবুবকর সিদ্দিক বলেন, দীর্ঘ অনুসন্ধানের পর এ মামলা করা হয়। আসামি যেহেতু সরকারি কর্মকর্তা তাই মামলার পর তার বিরুদ্ধে আইন অনুযায়ী ব্যবস্থা নেয়া হবে।

একে জামান/এএম/জেআইএম

আপনার মতামত লিখুন :