ইজতেমা ময়দানে ফের মুখোমুখি দু’পক্ষ, প্রবেশে নিষেধাজ্ঞা

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি গাজীপুর
প্রকাশিত: ০১:৩৬ পিএম, ২৭ ফেব্রুয়ারি ২০১৯
ফাইল ছবি

গাজীপুরের টঙ্গী ইজতেমা ময়দানে ব্যবহৃত সরঞ্জামাদি অপসারণে জটিলতা সৃষ্টি হওয়ায় মাওলানা সাদ ও জোবায়েরপন্থীদের ইজতেমা ময়দানে প্রবেশে সাময়িক নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে প্রশাসন। বুধবার সকাল থেকে এ নিষেধাজ্ঞা কার্যকর হচ্ছে।

গাজীপুরের জেলা প্রশাসক ড. দেওয়ান মুহাম্মদ হুমায়ূন কবীর জানান, ১৫ ফেব্রুয়ারি থেকে ৫ দিনের বিশ্ব ইজতেমা শেষে ময়দানের মালামাল অপসারণের কাজ চালাচ্ছিলেন উভয় পক্ষের মুসল্লিরা। সরঞ্জামাদি অপসারণ নিয়ে তাদের মধ্যে ঝামেলা সৃষ্টি হওয়ায় উভয় পক্ষের মুসল্লিদের ময়দানে প্রবেশে সাময়িক নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়েছে। তারা ঐক্যমত হলে তাদের কাছে মালামাল বুঝিয়ে দেয়া হবে।

গাজীপুর মেট্রোপলিটন পুলিশের কমিশনার ওয়াইএম বেলালুর রহমান জানান, বিশ্ব ইজেতমা শেষ হওয়ার পর থেকেই ইজতেমা ময়দান পুলিশের নিয়ন্ত্রণে রয়েছে। ময়দানের মালামাল গোছানোর জন্য উভয় পক্ষের মুসল্লিরা ময়দানে কাজ করছেন। এ মালামাল অপসারণ নিয়ে সম্প্রতি দুই পক্ষের মধ্যে মতবিরোধের কারণে উভয় পক্ষকে ময়দানে প্রবেশে নিষেধ করা হয়েছে। বুধবার সকাল থেকে পুরো ইজতেমা ময়দান পুলিশ নিয়ন্ত্রণে নিয়েছে। কোনো পক্ষকেই ময়দানে প্রবেশ করতে দেয়া হচ্ছে না। দুই পক্ষের ঐক্যমত না হওয়া পর্যন্ত ইজতেমা মাঠ প্রশাসনের নিয়ন্ত্রণেই থাকবে। উভয় পক্ষ ঐক্যমত হলে তাদের কাছে ময়দান ও মালামাল বুঝিয়ে দেয়া হবে।

উল্লেখ্য, এ বছর তাবলিগ জামাতের মুসল্লিদের দুটি পক্ষের সংঘর্ষ ও মতবিরোধের কারণে আলাদাভাবে চারদিন ব্যাপী ইজতেমা অনুষ্ঠিত হয়। সরকারের মধ্যস্থতায় সমঝোতার পর ১০টি শর্তে দুই পক্ষ পৃথকভাবে দুদিন করে ইজতেমা পরিচালনার সিদ্ধান্ত নেয়। সে প্রেক্ষিতে ১৫ ও ১৬ ফেব্রুয়ারি প্রথম দুদিন মাওলানা জোবায়েরপন্থীরা এবং পরের দুদিন ১৭ ও ১৮ ফেব্রুয়ারি মাওলানা সাদপন্থীরা ইজতেমা পরিচালনা করেন।

আমিনুল ইসলাম/আরএআর/এমকেএইচ