নাটোরে বরযাত্রীর গাড়িতে হামলা : আহত ৫

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি নাটোর
প্রকাশিত: ১২:০৩ এএম, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২০

নাটোরের বড়াইগ্রামে রাস্তায় রাখা বালু নষ্ট হওয়ায় বরযাত্রী বহনকারী গাড়িতে হামলার ঘটনা ঘটেছে। এতে আহত হয়েছেন পাঁচজন।

শুক্রবার (২৫ সেপ্টেম্বর) বিকেল ৫টার দিকে উপজেলার রামকান্তাপুর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। আহতদের উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। অবস্থার অবনতি হওয়া একজনকে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

আহতরা হলেন- উপজেলার উপলশহর হিন্দুপাড়া গ্রামের মৃত দবির সর্দারের ছেলে মুনজুরুর রহমান (৩৪), মৃত গেদা মোল্লার ছেলে ওয়াজেদ (৫০), মৃত আসকানের ছেলে রফিক (৩৪), আনোয়ারের ছেলে রাকিব (১৮) ও হাবিল উদ্দিনের ছেলে হুমায়ন (১৮)।

স্থানীয়রা জানায়, উপলশহর হিন্দুপাড়া গ্রামের এরশাদ আলীর ছেলে সৌরভের বিয়ের জন্য দুটি মিনিবাস ও চারটি মাইক্রোবাস যোগে বরযাত্রীরা পাশের গুরুদাসপুর উপজেলার মকিমপুর গ্রামে যাচ্ছিল। পথে রামকান্দাপুর গ্রামে বারু সর্দারের ছেলে শুকুর আলী সর্দারের বাড়ি সামনে পৌঁছালে রাস্তায় রাখা বালির উপরে গাড়ির চাকা উঠে যায়। ফলে কিছু বালি নষ্ট হয়। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে বালির মালিক শুকুর আলী তার ভাই ভাতিজাদের নিয়ে বরযাত্রীর গাড়িতে হামলা করে। এ সময় বরের চাচা মমতাজুর এগিয়ে গেলে তাকে পিটিয়ে গুরুতর জখম করে। লাঠি ও ভাঙা কাঁচের আঘাতে আরও চারজন আহত হয়। আহতদের মধ্যে মমতাজুল নামের একজনের অবস্থা গুরুতর হওয়ায় রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

শুকুর আলী বলেন, আমার বাবার দেয়া রাস্তায় আমি বালি রেখেছি। কেন তারা নষ্ট করবে। সে কারণে তাদের কিছুটা মারপিট করা হয়েছে।

বড়াইগ্রাম থানার পুলিশ পরিদর্শক দিলিপ কুমার দাস বলেন, পুলিশ পাঠিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করা হয়েছে। বর পক্ষকে থানায় মামলা করতে বলা হয়েছে।

রেজাউল করিম রেজা/এএইচ

 

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]