হাতিয়ায় দুই ট্রলারডুবি, এক জেলের মরদেহ উদ্ধার

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি নোয়াখালী
প্রকাশিত: ০১:৩৮ পিএম, ১৩ সেপ্টেম্বর ২০২১
ফাইল ছবি

নোয়াখালীর বিচ্ছিন্ন দ্বীপ উপজেলা হাতিয়ার মেঘনা নদীতে দুটি ট্রলারডুবির ঘটনায় ইউসুফ মাঝি (৫০) নামে এক জেলের মরদেহ উদ্ধার করেছে নৌ-পুলিশ। এ ঘটনায় আবুল কালাম নামে আরেক মাঝি নিখোঁজ রয়েছেন। দুর্ঘটনা কবলিত দুই ট্রলারের ১৪ জনকে জীবিত উদ্ধার করা হয়েছে।

রোববার (১২ সেপ্টেম্বর) বিকেলে ইসলাম চরের পাশের এলাকার মেঘনা নদীতে এ ট্রলারডুবির ঘটনা ঘটে।

নিহত ইউছুফ মাঝি উপজেলার ২ নং চানন্দী ইউনিয়নের পশ্চিম আদর্শগ্রামের মৃত মো. হোসেনের ছেলে। নিখোঁজ জেলে আবুল কালাম একই এলাকার মো. বাতেনের ছেলে।

জানা যায়, শনিবার (১১ সেপ্টেম্বর) রাতে মাছধরার একটি ছোট ট্রলার নিয়ে নদীতে যান জেলেরা। রোববার সকালে অন্য একটি ট্রলারের মাধ্যমে নদীতে থাকা জেলেরা ট্রলারটি ডুবে গেছে বলে জানতে পারেন। পরে অন্য ট্রলারের সহযোগিতায় ওই ট্রলারের সাত মাঝিকে জীবিত উদ্ধার করা হয়। তবে আবুল কালাম নামে এক জেলের খোঁজ পাওয়া যায়নি।

এদিকে একই ঘাটের ইউছুফ মাঝির ট্রলারটিও একই সময়ে দুর্ঘটনার কবলে পড়ে। অন্য ট্রলারের লোকজন ডুবে যাওয়া ট্রলারের সাত মাঝিকে জীবিত উদ্ধার করে। এ সময় ট্রলারের মালিক ইউছুফ মাঝিকে পাওয়া যায়নি। ডুবে যাওয়া ট্রলারটি উদ্ধারের পর কেবিনের মধ্যে ইউছুফ মাঝির মরদেহ পাওয়া যায়।

বিষয়টি নিশ্চিত করেন হাতিয়া নলচিরা ঘাটের নৌ-পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ মো. ইয়ার আলী।

তিনি জানান, দুর্ঘটনার শিকার ট্রলার দুটিতে থাকা ১৪ জেলেকে পার্শ্ববর্তী মাছ ধরার কয়েকটি ট্রলার জীবিত উদ্ধার করে। একটি ট্রলার থেকে জেলে ইউছুফের মরদেহ উদ্ধার করা হয়।

হাতিয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মো. ইমরান হোসেন বলেন, নিখোঁজ জেলেকে উদ্ধারে কাজ করছে স্থানীয় প্রশাসন। মৃত জেলের লাশ দাফনের ব্যবস্থা করা হয়েছে।

ইকবাল হোসেন মজনু/ এফআরএম/এএসএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]