ভিশনের ‘হট আইটেম’ এলইডি টিভি

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৯:১২ পিএম, ১১ জানুয়ারি ২০১৮

ঢাকা আন্তর্জাতিক বাণিজ্য মেলার ১১তম দিনে ক্রেতা-দর্শনার্থীদের উপস্থিতি ছিল লক্ষণীয়। গত কয়েকদিনের তীব্র শৈতপ্রবাহের কারণে মেলায় লোকসমাগম ছিল অনেক কম। ঠান্ডার তীব্রতা কমতে শুরু করায় ক্রেতা-দর্শনার্থীরাও ফের মেলামুখি হচ্ছেন।

গতকাল সরেজমিন মেলা প্রাঙ্গণ ঘুরে দেখা যায়, রকমারি ইলেক্ট্রনিক্স পণ্যে সাজানো ভিশন প্যাভিলিয়নে মানুষের উপচে পড়া ভিড়। চলছে টেলিভিশন বিক্রির ধুম। ভিশন কর্তৃপক্ষ বলছে, এবারের মেলায় ভিশন পণ্যের মধ্যে এলইডি টিভি-ই হচ্ছে তাদের ‘হট আইটেম’।

ভিশনের কর্মকর্তারা জানান, সাশ্রয়ী মূল্যে অত্যাধুনিক পণ্য, আকর্ষণীয় ডিজাইন ও কালার, দ্রুত ও সর্বোত্তম বিক্রয়োত্তর সেবার নিশ্চয়তার কারণে মেলায় গ্রাহকপ্রিয়তার শীর্ষে রয়েছে ভিশনের ফ্রিজ, এলইডি ও স্মার্ট টেলিভিশনসহ ইলেক্ট্রনিক্স হোম ও ইলেক্ট্রিক্যাল অ্যাপ্লায়েন্সেস।

মেলার প্রধান ফটক দিয়ে প্রবেশ করে সামনে তাকালেই চোখে পড়বে ভিশন ইলেক্ট্রনিক্সের নান্দনিক প্যাভিলিয়ন। প্যাভিলিয়ন থেকে টিভি, ফ্রিজসহ ভিশন ইলেক্ট্রনিক্সের পণ্য কিনে ২০০ জন সৌভাগ্যবান পেতে পারেন ফ্রি রাশিয়ায় গিয়ে বিশ্বকাপ ফুটবল খেলা দেখাসহ সাতদিন সেখানে অবস্থানের সুযোগ। এছাড়া রয়েছে স্ক্র্যাচ কার্ড ঘষে নগদ ছাড়।
এ বিষয়ে প্যাভিলিয়নের ইনচার্জ মো. মোমিনুল হক জানান, মেলা থেকে ভিশনের যে কোনো পণ্য কিনলে ক্রেতাকে দেয়া হবে গোল্ড কার্ড। এটি স্ক্র্যাচ (ঘষে) করে ২০০ জন সৌভাগ্যবান ক্রেতা পেতে পারেন রাশিয়ায় আয়োজিত বিশ্বকাপ ফুটবল খেলা দেখার সুযোগ। একইসঙ্গে রাশিয়ায় সাতদিন অবস্থান করতে পারবেন। গোল্ড কার্ড স্ক্র্যাচের মাধ্যমে থাকছে নগদ মূল্যছাড়।

তিনি বলেন, মেলার শুরু থেকে যথেষ্ট সাড়া পাচ্ছি। যে প্রত্যাশা নিয়ে আমাদের মেলায় অংশগ্রহণ, সেটা সফল হচ্ছে। অবশ্যই একটা লক্ষ্য থাকে। আশা করছি কাঙ্ক্ষিত লক্ষ্যের চেয়ে বেশিকিছু অর্জিত হবে।

মানুষ কেন ভিশন পণ্য কিনবেন- এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, আমাদের পণ্যের বিশেষ বৈশিষ্ট্য হচ্ছে সাশ্রয়ী মূল্যে উচ্চ গুণগতমান। একমাত্র আমরাই পণ্য বিক্রির পর নিজস্ব প্রশিক্ষিত টেকনিশিয়ান দিয়ে হোম ডেলিভারি দেই। ওয়ারেনটি পিরিয়ডের পরও নামমাত্র চার্জে লাইফটাইম হোম সার্ভিস সুবিধা দিয়ে থাকে ভিশন। ফলে কখনো কোনো ক্রেতা হয়রানির শিকার হন না।

ভিশন প্যাভিলিয়নে ২০ হাজার ৫০০ থেকে ২১ হাজার ৭৫০ টাকায় বিভিন্ন সাইজের নরমাল বেসিক টিভি পাওয়া যাচ্ছে। এছাড়া ২৭ হাজার ৩০০ থেকে ২৮ হাজার ৯০০ টাকায় পাওয়া যাচ্ছে স্মার্ট টিভি।

দুই লাখ ২৩ হাজার, এক লাখ পাঁচ হাজার, ৮৩ হাজার, ৫৪ হাজার, ৫০ হাজার, ২৮ হাজার ৯০০ টাকা মূল্যের ৩-ডি ও ৪-কে স্মার্ট টেলিভিশনও নিয়ে এসেছে ভিশন।

স্মার্ট টিভিগুলো অ্যান্ড্রয়েড ও ভিটালাইট অপারেটিং সিস্টেমে চলে। টিভিগুলো কম্পিউটারের মনিটর হিসেবে ব্যবহারের পাশাপাশি সিসিটিভির ফুটেজ সংরক্ষণ করে রাখা যায়। এসব টিভিতে ৬৪ জিবি পর্যন্ত এক্সটারনাল মেমোরি (পেনড্রাইভ) ব্যবহার করা যায়। পেনড্রাইভ ব্যবহারের জন্য প্রত্যেকটি টিভিতে দুটি ইউএসবি পোর্ট রয়েছে।

মোমিনুল হক বলেন, এবার তাদের ‘হট প্রোডাক্ট’ হচ্ছে এলইডি টিভি। কারণ আসছে রাশিয়া ফুটবল বিশ্বকাপের খেলা উপভোগের জন্য আমরাই কম দামে মানসম্মত টিভি দিচ্ছে যা অন্য কোনো প্রতিষ্ঠান দিচ্ছে না।

এমইউএইচ/এমএআর/আইআই

আপনার মতামত লিখুন :