কলকাতার সিরিয়াল নিয়ে মহিলা কমিশনে অভিযোগ


প্রকাশিত: ০৬:৪৭ পিএম, ২০ মার্চ ২০১৭
কলকাতার সিরিয়াল নিয়ে মহিলা কমিশনে অভিযোগ

কলকাতার বাংলা চ্যানেলগুলোতে যেসব বাংলা ধারাবাহিকগুলো প্রচার হয় সেগুলোর কাহিনী নিম্নমানের ও নিম্নরুচির। এ নিয়ে অনেক সমালোচনা হয় দুই বাংলাতেই। বাংলাদেশে এইসব সিরিয়াল প্রচার বন্ধে অনেক অনেক আন্দোলন, মিটিং মিছিল হচ্ছে।

এরইমধ্যে জানা গেল, নিজ দেশেই নিষেধাজ্ঞার মুখে পড়তে যাচ্ছে এইসব মানহীন সিরিয়াল। জানান গেছে, পশ্চিমবঙ্গ মহিলা কমিশনের কাছে চিঠি লিখেছেন নারী সাংবাদিক মঞ্জিরা মজুমদার। তিনি চিঠিতে লিখেছেন, বাংলা ধারাবাহিকগুলোতে নারীদের চরিত্র তুলে ধরতে গিয়ে তাদের দুর্বল দেখানো হচ্ছে।

বেশ কয়েকটি বাংলা ধারাবাহিক যেমন, ‘এই ছেলেটা ভেলভেলেটা’, ‘পুন্যি পুকুর’, ‘বেনে বউ’ ইত্যাদির নাম উল্লেখ করা হয়েছে নারী কমিশনে পাঠানো ওই অভিযোগের চিঠিটিতে। বলা হয়েছে, কুরুচির পাশপাশি নিম্নমানের কাহিনী দেখানো হচ্ছে এই ধারাবাহিকগুলোতে।

আরও অভিযোগ করেছেন, নারীদের ক্ষমতায়নের বাস্তব চিত্র তুলে ধরার জায়গায়, এই ধারাবাহিকগুলোতে অবাস্তব বহু জিনিস দেখানো হচ্ছে। বেশ কয়েকটি আইন বিরুদ্ধ বিষয়, যেমন একই ব্যক্তির একসঙ্গে দুটি বিয়ে, ইত্যাদি বিষয় জায়গা করে নিয়েছে বাংলা ধারাবাহিকগুলিতে।

এদিকে, এ বিষয়ে মন্তব্য করতে গিয়ে বাংলা ধারাবাহিকের অন্যতম প্রযোজনা সংস্থা ভেঙ্কটেশ ফিল্মের পক্ষ থেকে শ্রীকান্ত মোহতা জানিয়েছেন, ‘আমাদের ধারাবাহিকগুলো বাস্তবচিত্রকেই প্রতিফলিত করে। যারা এই ধারাবাহিকের সমালোচনা করছেন তারা কী জোর গলায় বলতে পারবেন, যে সমাজে এক পুরুষের একসঙ্গে দুটি বিয়ের মতো ঘটনা ঘটছে না?’

প্রসঙ্গত, কিছুদিন আগেই রাজ্যপাল কেশরীনাথ ত্রিপাঠি বাংলা টিভি ধারাবাহিকগুলির সমালোচনা করে বলেন, এগুলো সমাজের পক্ষে ক্ষতিকারক। তারপরই এই ধরনের অভিযোগ পশ্চিমবঙ্গ মহিলা কমিশনের কাছে দায়েরের ঘটনা, কী প্রভাব ফেলে এখন সেটাই দেখার অপেক্ষা।

এনই/এলএ

বিনোদন, লাইফস্টাইল, তথ্যপ্রযুক্তি, ভ্রমণ, তারুণ্য, ক্যাম্পাস নিয়ে লিখতে পারেন আপনিও - jagofeature@gmail.com