হনুমানই বিশ্বের প্রথম আদিবাসী নেতা!

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রকাশিত: ০২:৪৭ পিএম, ২৬ মে ২০১৮

হনুমানই বিশ্বের প্রথম আদিবাসী নেতা বলে মন্তব্য করেছেন বিজেপি থেকে নির্বাচিত ভারতের একজন সাংসদ। গিয়ান দেব আহুজা নামের ওই বিজেপি সাংসদ শুক্রবার রাজস্থানের রামগড়ে দলীয় অফিসে এ মন্তব্য করেন। খবর হিন্দুস্তান টাইমস।

শুক্রবার ওই সাংসদ বলেন, ‘বিশ্বের প্রথম আদিবাসী নেতা ছিলেন হনুমান জি। আদিবাসীদের মধ্যে প্রথম দেবতা হনুমান জি। লর্ড রাম যখন চিত্রাকুট থেকে দেশটির দক্ষিণাঞ্চলে নির্বাসনে যাচ্ছিলেন, তখন হনুমান আদিবাসীদের নিয়ে সেনাবাহিনী গঠন করেছিলেন এবং তিনি রামের কাছ থেকে প্রশিক্ষণ নিয়েছিলেন।’

হিন্দুস্তান টাইমস জানায়, গত ২ এপ্রিলের ভারত বন্ধ আন্দোলনের একটি ভিডিওতে তিনি দেখতে পান, ড. ভিম রাও আম্বেদকারের একটি মূর্তির নিচে হনুমানের ছবি পড়ে আছে। এ ঘটনাকে তিনি দেবতাকে অসম্মান করা হচ্ছে বলে মন্তব্য করেন। এ ঘটনায় তিনি রাজস্থানের সাংসদ কিরোদী লাল মীনাকে তার কাছে ডেকে পাঠান। এ সময় তিনি তাকে বলেন, ‘আপনাদের সকলের লজ্জা পাওয়া উচিত। আপনারা নিজেদের উপজাতি বলেন অথচ আপনারা তাকেই অসম্মান করলেন।’

আহুজা হিন্দুস্তান টাইমসকেও একই কথার পুনরাবৃত্তি করেছেন। তিনি বলেন, ‘এইসব....লোকজন নিজেদেরকে আদিবাসী বলে পরিচয় দেয়। এমনকি যদি তারা ড. ভিম রাও আম্বেদকারকে তাদের দেবতা বলে গণ্য করে, তবে আমি বলব, বিশ্বের সত্যিকারের প্রথম আদিবাসী নেতা হনুমান জি। তিনিই তাদের প্রথম দেবতা। তিনিই দলিতদের প্রশিক্ষণ দিয়েছেন।’

তিনি দাবি করেন, সারাবিশ্বে হনুমানের ৪০ লাখ মন্দির রয়েছে; যা যে কোনো দেবতাদের তুলনায় সবচেয়ে বেশি। তবে আহুজার এমন মন্তব্য চটেছেন কিরোদী লাল মীনা। তিনি বলেন, হনুমানের যুগে কোনো রাজনীতি ছিল না। আহুজাকে এ বিষয়ে আরও সতর্ক হওয়া উচিত যে, তিনি হনুমানকে কেন আদিবাসী বললেন।

তিনি আরও বলেন, আমিও শুনেছি যে, হনুমানকে অসম্মান করা হয়েছে। এটা করা ঠিক হয়নি, দুর্ভাগ্যবশত এটা হয়ে গেছে। তবে এখানে আদিবাসীদের কথা কেন আসছে? তিনি (হনুমান) ধর্মীয় ব্যক্তিত্ব। এ ঘটনা সকল পূজারিকে ব্যথিত করেছে।’

এসআর/টিটিএন/জেআইএম

আপনার মতামত লিখুন :