চলতি মাসেই বৈঠকে বসবেন কিম-পুতিন

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
আন্তর্জাতিক ডেস্ক আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৭:৩১ পিএম, ১৯ এপ্রিল ২০১৯

উত্তর কোরিয়ার সর্বোচ্চ নেতা কিম জং উন ও রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন চলতি মাসেই বৈঠকে বসবেন। বৈঠক করতে রাশিয়ায় যাবেন কিম। বৃহস্পতিবার এ ঘোষণা দিলেও কোথায় আর কখন দুই নেতা বৈঠকে বসছেন তা জানায়নি ক্রেমলিন।

বার্তা সংস্থা রয়টার্সের এক প্রতিবেদনে জানানো হয়েছে, কিম জং উন ২০১১ সালে উত্তর কোরিয়ার ক্ষমতায় বসেন। কিন্তু এখন পর্যন্ত বিশ্বে পরাশক্তি হিসেবে পরিচিত এই দুই দেশের নেতার মধ্যে কোনো বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়নি।

কিমের গোপনীয়তার বিষয়টি বিবেচনা করে স্থান ও সময় বদলে যাওয়ার সম্ভাবনাও আছে। বৈঠক আয়োজনে পিয়ংইয়ংয়ের সঙ্গে কয়েক মাস ধরেই আলোচনা চলছিল বলে জানিয়েছে মস্কো। এদিকে উত্তর কোরিয়ার কর্মকর্তা কিম চ্যাং সনকে রাশিয়ার ট্রেন স্টেশনের নিরাপত্তা ব্যবস্থা খতিয়ে দেখতে দেখা গেছে।

কোরীয় উপদ্বীপকে পারমাণবিক নিরস্ত্রীকরণ করার লক্ষে সম্প্রতি মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের সঙ্গে বৈঠক করেন কিম। কিন্তু সেই বৈঠক ব্যর্থ হওয়ায় ট্রাম্প প্রশাসনের সঙ্গে পিয়ংইয়ংয়ের দুরত্ব বাড়তে থাকার মধ্যেই পুতিনের সঙ্গে কিমের বৈঠকের ঘোষণা আসলো।

উত্তর কোরিয়া জানিয়েছে, যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে আলোচনা করতে তারা আর মার্কিন পররাষ্ট্র মন্ত্রী মাইক পম্পেওকে চায় না। পম্পেওর জায়গায় ‘আরও পরিণত’ কাউকে আলোচনায় দেখার প্রত্যাশাও ব্যক্ত করেছে পিয়ংইয়ং।

তবে ট্রাম্প-কিমের দ্বিতীয় বৈঠক ভেস্তে গেলেও সম্প্রতি কিম ঘোষণা দিয়েছেন তিনি ট্রাম্পের সঙ্গে ফের বৈঠকে আগ্রহী কিন্তু সেটা শর্তসাপেক্ষে। তিনি বলেছেন, আলোচনায় বসতে হলে ‘উভয় পক্ষের কাছে গ্রহণযোগ্য’চুক্তি নিয়ে আসতে হবে তাদের।

এসএ/পিআর

আপনার মতামত লিখুন :