হামলার শঙ্কায় সৌদি সফরে যুক্তরাষ্ট্রের সতর্কতা

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
আন্তর্জাতিক ডেস্ক আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৩:৩০ পিএম, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০১৯

হামলার আশঙ্কায় সৌদি আরব সফরে নাগরিকদের ওপর সতর্কতা জারি করেছে যুক্তরাষ্ট্র। বুধবার যুক্তরাষ্ট্রের পররাষ্ট্র দফতরের এক বিবৃতিতে ওই সতর্কতা জারি করা হয়। একটি ভ্রমণ সতর্কতা জারি করে মার্কিন নাগরিকদের সৌদিতে সফরের সময় সতর্ক থাকার পরামর্শ দেয়া হয়েছে।

সাম্প্রতিক সময়ে ইয়েমেন থেকে হুথি বিদ্রোহীরা ক্রমাগত আবহা বিমানবন্দরে ড্রোন ও ক্ষেপণাস্ত্র হামলা চালিয়ে যাচ্ছে। ওই এলাকায় সৌদি নেতৃত্বাধীন জোট হুথি বিদ্রোহীদের বিরুদ্ধে লড়াই করছে।

মার্কিন পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের বিবৃতিতে বলা হয়েছে, মার্কিন মিশনের কর্মকর্তারা এবং তাদের পরিবারের সদস্যরা মিশনের প্রধানের অনুমতি ছাড়া আবহা বিমানবন্দর ব্যবহার করতে পারবে না। কিন্তু এমন সতর্কতার মধ্যেই আজ সৌদি সফরে যাচ্ছেন মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী মাইক পম্পেও। সৌদির সফর শেষে তিনি আমিরাতে সফরে যাবেন।

এদিকে, শনিবার সৌদির অ্যারামকো তেল কোম্পানির আবকাইক ও খুরাইশ স্থাপনায় হামলা চালানো হয়। এতে ওই দুই তেলক্ষেত্র ব্যাপকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। যুক্তরাষ্ট্রের তরফ থেকে বলা হয়েছে, যেখান থেকে সৌদিতে হামলা চালানো হয়েছে সেই এলাকা শনাক্ত করা সম্ভব হয়েছে। ইরান থেকেই সৌদির দুই তেলক্ষেত্রে ড্রোন ও ক্রুজ ক্ষেপণাস্ত্র দিয়ে হামলা চালানো হয়েছে বলে দাবি করেছে যুক্তরাষ্ট্র।

শনিবারের ওই হামলার পর সৌদির তেল ও গ্যাস উৎপাদন শতকরা ৫০ ভাগ কমে গেছে। সৌদিতে তেল উৎপাদন প্রতিদিন ৫৭ লাখ ব্যারেল কমে গেছে। এদিকে মঙ্গলবার হুথি বিদ্রোহী গোষ্ঠীর মুখপাত্র ইয়াহিয়া সারি ওই এলাকায় বিদেশিদের প্রবেশ না করতে হুঁশিয়ারি দিয়েছেন। কারণ সেখানে হুথি বিদ্রোহীরা আবারও হামলা চালাতে পারে বলে সতর্ক করেছেন তিনি।

সৌদিতে একের পর এক হামলার ঘটনাকে কেন্দ্র করে উত্তেজনা বিরাজ করছে। সে কারণেই দেশটিতে সফরের ব্যাপারে নিজ দেশের নাগরিকদের সতর্ক থাকার পরামর্শ দিয়েছে মার্কিন পররাষ্ট্র দফতর।

টিটিএন/পিআর