যুক্তরাজ্যে করোনা ঠেকাতে দেয়া হবে টিকার তৃতীয় ডোজ

ফিরোজ আহম্মেদ বিপুল
ফিরোজ আহম্মেদ বিপুল ফিরোজ আহম্মেদ বিপুল লন্ডন
প্রকাশিত: ০৪:০৬ এএম, ০৬ মে ২০২১ | আপডেট: ০৪:০৭ এএম, ০৬ মে ২০২১

যুক্তরাজ্যে করোনার প্রকোপ অনেকটা নিয়ন্ত্রণে আসায় পূর্বের ঘোষণা অনুযায়ী ধীরে ধীরে শিথিল হচ্ছে লকডাউন। তবে আগামী বসন্ত শুরুর আগেই ক্রিসমাসের সময় করোনার হুমকি ঠেকাতে এবার ৫০ বছরের বেশি বয়সীদের করোনা টিকার তৃতীয় ডোজ দেয়ার চিন্তা করছে দেশটি।

সম্প্রতি এক ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যমে ইংল্যান্ডের প্রধান মেডিকেল অফিসার ক্রিস উইটি একথা জানান।

এই তৃতীয় ডোজের জন্য ইংল্যান্ডের প্রধান চিকিৎসা কর্মকর্তা ক্রিস উইটির তত্ত্বাবধানে দুটি বিকল্পের পরীক্ষা চলছে এই মুহূর্তে। প্রথমটিতে নতুন ভ্যারিয়েন্টগুলো মোকাবিলায় বিশেষত সংশোধিত টিকা অন্তর্ভুক্তকরণের কথা ভাবা হচ্ছে। আর দ্বিতীয়টি হলো- ইতোমধ্যে ব্যবহৃত তিনটি সংস্করণের (ফাইজার-বায়োএনটেক, অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকা, মর্ডানা) মধ্যে যেকোনো একটি।

পরিসংখ্যান অনুযায়ী, এখন পর্যন্ত যুক্তরাজ্যে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে ১ লাখ ২৭ হাজার ৫৪৩ জনের মৃত্যু হয়েছে। সব মিলিয়ে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ৪৪ লাখের বেশি মানুষ।

যুক্তরাজ্যে সরকারি পরিসংখ্যানে মঙ্গলবার (৪ মে) দেখা গেছে, দেশটিতে মোট ৩৪.৬ মিলিয়নেরও বেশি লোককে প্রথমবারের মতো ভ্যাকসিন দেয়া হয়েছে। ইতিমধ্যে আটটি কোভিড-১৯ ভ্যাকসিন কোম্পানির সঙ্গে ৫১০ মিলিয়ন ডোজের চুক্তি রয়েছে ব্রিটেনের। যার মধ্যে কয়েকটি আগমনের অপেক্ষায় আছে। বর্তমানে ভ্যাকসিন কর্মসূচিতে তিনটি কোম্পানি যুক্ত আছে।

গত সপ্তাহে দেশটির স্বাস্থ্যমন্ত্রী ম্যাট হ্যানকক একটি চুক্তিতে বলেছিলেন যে, এই বছরের শেষের দিকে বুস্টার প্রোগ্রামের আগে টিকার ডোজের সরবরাহ দ্বিগুণেরও বেশি করা হবে।

এমআরআর

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]