মাঝেমাঝে গোসল না করা স্বাস্থ্যের পক্ষে ভালো!

লাইফস্টাইল ডেস্ক
লাইফস্টাইল ডেস্ক লাইফস্টাইল ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৩:১৮ পিএম, ১০ জানুয়ারি ২০১৯

শীত এলেই গোসলে ফাঁকি দিতে শুরু করেন অনেকেই। ঠান্ডা পানির ভয়ে আর সাহস করে গোসলটা করতে পারেন না। তবে টানা গোসল না করেও থাকা যায় না। দু-একদিন বাদেই আবার গোসল করতে হয়। এটা নিয়ে ইয়ার্কি-ঠাট্টার পাত্রও হতে হয় বন্ধু কিংবা কাছের মানুষদের কাছে। কিন্তু গবেষকরা বলছেন ভিন্ন কথা। মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের বস্টন ইউনিভার্সিটির একদল গবেষকদের মতে নিয়মিত গোসল না করাই ভালো।

এই মার্কিন গবেষকদের মতে, প্রতিদিন গোসল করলে ত্বকের বেশ ক্ষতি হতে পারে। মূলত শরীরের ময়লা, ঘাম ধুয়ে ফেলার জন্যই আমরা গোসল করে থাকি। তবে বিশেষজ্ঞদের দাবি, শরীরের ময়লা, ঘাম ধোয়ার সঙ্গে গোসলের কোনো সম্পর্ক নেই।

Gosol-2

একাধিক মার্কিন চর্মরোগ বিশেষজ্ঞদের মতে, প্রতিদিন গোসল করাটা অনেকটাই একটা সামাজিক রীতি বা অভ্যাস। এক্ষেত্রে তাদের যুক্তি হলো, শরীরের নিজস্ব ক্রিয়াই ত্বককে ময়লা হওয়ার হাত থেকে রক্ষা করে। তাই বলে গোসল একেবারে বন্ধ করার পক্ষেও কোনো যুক্তি দেখাননি তারা।

বস্টন ইউনিভার্সিটির গবেষকদের মতে, শরীরে এমন কিছু ভালো ব্যাকটেরিয়া জন্মায় যা টক্সিনের হাত থেকে ত্বককে রক্ষা করে। প্রতিদিন গোসলের ফলে ভালো ব্যাকটেরিয়াগুলো শরীর থেকে ধুয়ে বেরিয়ে যায়। আর তাতে শরীরেরই ক্ষতি হয়। এছাড়াও নিয়মিত গোসলের ফলে নখের ক্ষতি হয়। মার্কিন গবেষকদের মতে, গোসলের সময় নখ অতিরিক্ত পানি শোষণ করে ধীরে ধীরে দুর্বল হয়ে পড়ে।

সুতরাং, অনিয়মিত গোসল আসলে স্বাস্থ্যকর। তাই শীতে দু-একদিন গোসল না করলেও লজ্জা বা সংকোচের কিছু নেই।

এইচএন/এমকেএইচ

বিনোদন, লাইফস্টাইল, তথ্যপ্রযুক্তি, ভ্রমণ, তারুণ্য, ক্যাম্পাস নিয়ে লিখতে পারেন আপনিও - [email protected]

আপনার মতামত লিখুন :