ঈদে সড়ক-মহাসড়কগুলো যানজটমুক্ত করুন

সম্পাদকীয়
সম্পাদকীয় সম্পাদকীয়
প্রকাশিত: ০৯:৪৭ এএম, ১৯ মে ২০১৯

ঈদে ঘরমুখো মানুষের নির্বিঘ্ন যাতায়াতের জন্য সড়ক-মহাসড়কগুলো যানজটমুক্ত রাখা জরুরি হয়ে পড়েছে। ঈদযাত্রা নির্বিঘ্ন করতে নানা পদক্ষেপের কথা বলা হলেও ফি বছর যাত্রাপথের দুর্ভোগ আর ক্লান্তি নিয়েই লোকজনকে বাড়ি ফিরতে হয়। এবার যেন কোনো অবস্থায়ই যানজট সৃষ্টি না হয় সেটি নিশ্চিত করতে হবে।

ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়কের অবস্থা সবচেয়ে করুণ। এ রুটে যানজট লেগেই আছে। বিশেষ করে চন্দ্রা মোড়ে এবার যানজটের আশঙ্কা করা হচ্ছে।

মহাসড়কে চারলেনের উন্নয়ন কাজ চলার কারণেও তীব্র যানজট সৃষ্টি হচ্ছে। অন্যদিকে পাটুরিয়া-দৌলতদিয়া নৌ-রুটে ঈদযাত্রা নির্বিঘ্ন করতে প্রশাসনের পক্ষ থেকে এবারো ব্যাপক প্রস্তুতি নেয়ার কথা বলা হলেও পারাপার নিয়ে শঙ্কা কাটছে না যাত্রী ও পরিবহন শ্রমিকদের।

দেশের দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলের মানুষের রাজধানীর প্রবেশদ্বার হিসেবে খ্যাত পাটুরিয়া-দৌলতদিয়া নৌ-রুটে প্রতিদিন হাজারো মানুষ আর যান পারাপার হয়। ঈদের সময় এই ঘাটের ব্যস্ততা বেড়ে যায় আরো কয়েক গুণ। অতিরিক্ত এ চাপ সামাল দেয়া এবং যাত্রীদের নির্বিঘ্ন পারাপার নিশ্চিত করতে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নিতে হবে।

শুধু ব্যবস্থাপনাগত ত্রুটির কারণেই অধিকাংশ ক্ষেত্রে যানজট দেখা দেয়। প্রয়োজনে সামরিক-আধাসামরিক বাহিনীকেও রাস্তার সুষ্ঠু ব্যবস্থাপনার কাজে লাগানো যেতে পারে জনস্বার্থে।

ঈদে প্রতি বছরই লাখ লাখ মানুষ তাদের কর্মস্থল ছেড়ে যায় আত্মীয়-স্বজনের সঙ্গে উৎসব করতে। সেই যাত্রাকে যতোটা সম্ভব বিড়ম্বনামুক্ত করা যায় সে ব্যাপারে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের দায়িত্বশীল ভূমিকাই কাম্য। যাত্রাপথের বিড়ম্বনায় ঈদের আনন্দের সামান্য ঘাটতিও যেন না হয় সেটা নিশ্চিত করাই এই মুহূর্তের কর্তব্য।

এইচআর/জেআইএম

শুধু ব্যবস্থাপনাগত ত্রুটির কারণেই অধিকাংশ ক্ষেত্রে যানজট দেখা দেয়। প্রয়োজনে সামরিক-আধাসামরিক বাহিনীকেও রাস্তার সুষ্ঠু ব্যবস্থাপনার কাজে লাগানো যেতে পারে জনস্বার্থে।

আপনার মতামত লিখুন :