সরকার সীমান্তে রক্ত ঝরানো বন্ধ করতে পারেনি : বিএনপি

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক
জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ১২:৫৩ এএম, ২৩ জানুয়ারি ২০১৯
ফাইল ছবি

গত চারদিনে ঠাকুরগাঁওয়ে বাংলাদেশ-ভারত সীমান্তে বিএসএফের গুলিতে দুইজন নিরীহ বাংলাদেশি নিহত হওয়ার ঘটনায় গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করে বিবৃতি দিয়েছেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

মঙ্গলবার রাতে গণমাধ্যমে পাঠানো এক বিবৃতিতে বিএনপি মহাসচিব বলেন, ‘সীমান্তে বাংলাদেশি হত্যা অব্যাহত আছে। কয়েক বছর আগে বাংলাদেশের সঙ্গে ভারতের এক বৈঠকের পর বলা হয়েছিল- এখন থেকে আর সীমান্ত এলাকায় বাংলাদেশিদের হত্যা করা হবে না। কিন্তু বাস্তবে এই সিদ্ধান্তের কোনো প্রতিফলন দেখা যায়নি।’

তিনি বলেন, ‘দশকের পর দশক ধরে বাংলাদেশিদের হত্যার ধারাবাহিকতা এখন পর্যন্ত পুরোদমে চলছে। বাংলাদেশ সরকার সীমান্তে রক্ত ঝরানো বন্ধ করতে পারেনি। আওয়ামী লীগের কখনোই কথার সঙ্গে কাজের মিল নেই। এরা সবসময় জনগণকে মিথ্যা আশ্বাস দিয়ে প্রতারণা ও ধোঁয়াশার মধ্যে রাখে। গণবিচ্ছিন্ন সরকার বলেই এরা কখনোই জনগণের জানমালের তোয়াক্কা করে না। আওয়ামী সরকার বিএসএফ কর্তৃক বাংলাদেশিদের হত্যা ও ধরে নিয়ে গিয়ে নির্যাতনের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ পর্যন্ত কখনোই করেনি। এর কারণ বর্তমান সরকারের নতজানু পররাষ্ট্রনীতি। এভাবে প্রতিনিয়ত বিএসএফ কর্তৃক ভারতীয় সীমান্তে বাংলাদেশিদেরকে গুলি করে হত্যা করার ঘটনা গভীর উদ্বেগজনক।’

বিবৃতিতে ফখরুল বলেন, ‘ঠাকুরগাঁওয়ে বাংলাদেশ-ভারত সীমান্তে গত চারদিনে দুইজন বাংলাদেশিকে গুলি করে হত্যার ঘটনায় আমি তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাচ্ছি এবং অবিলম্বে এ ধরনের নির্মম হত্যাকাণ্ড বন্ধ করার জোরালো আহ্বান জানাচ্ছি।’

কেএইচ/বিএ