ঘোর দুর্দিন অতিক্রম করছে বাংলাদেশ : রিজভী

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক
জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০২:৫৫ পিএম, ২৫ মে ২০২০

বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম-মহাসচিব অ্যাডভোকেট রুহুল কবীর রিজভী আহমেদ বলেছেন, বাংলাদেশের দক্ষিণাঞ্চলে আম্ফান সুপার সাইক্লোনের তাণ্ডবে বাংলাদেশ এক ঘোর দুর্দিন অতিক্রম করছে। করোনার আগ্রাসনে মানুষের জীবন যাচ্ছে, আক্রান্ত হচ্ছে হাজার হাজার মানুষ। আর এদিকে আম্ফানের আঘাতে মানুষের জীবনহানিসহ বাড়িঘর ও সহায়-সম্পদ সবকিছু লন্ডভন্ড হয়ে গেছে।

তিনি বলেন, বিদ্যমান এই দুর্বিষহ ও দুঃখজনক পরিস্থিতি মোকাবেলা করতে মানুষকে জেগে উঠতে অভয় যোগাবে জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলামের গান ও কবিতা।

সোমবার জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলামের ১২১তম জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে কবির সমাধিতে জাতীয়তাবাদী সামাজিক সাংস্কৃতিক সংস্থার (জাসাস) পক্ষ থেকে পুস্পস্তবক অর্পণ ও ফাতেহা পাঠ করা হয়। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

রিজভী বলেন, কাজী নজরুল ইসলাম আমাদের জাতীয় কবি। সাহিত্যের এমন কোনো শাখা নেই যেখানে তার অবদান নেই। কবিতা, গান, প্রবন্ধ, গল্প, উপন্যাস, সাংবাদিকতা, চলচ্চিত্র নির্মাণ প্রতিটি ক্ষেত্রেই তিনি রেখেছেন প্রতিভার স্বাক্ষর। জাতির যেকোনো দুঃসময়ে কাজী নজরুলের সাহিত্য মানুষকে উদ্দীপ্ত করেছে সংকটকে মোকাবেলা করে এগিয়ে যাওয়ার জন্য। স্বৈরাচারী অন্যায়ের বিরুদ্ধে সংগ্রামে কবি নজরুলের গান ও কবিতা আজও মানুষের প্রেরণার উৎস।

তিনি বলেন, বর্তমানে বিশ্বব্যাপী করোনা ভাইরাসের অভিঘাত, এর ওপর বাংলাদেশের দক্ষিণাঞ্চলে আম্ফান সুপার সাইক্লোনের তাণ্ডবে বাংলাদেশ এক ঘোর দুর্দিন অতিক্রম করছে। করোনার আগ্রাসনে মানুষের জীবন যাচ্ছে, আক্রান্ত হচ্ছে হাজার হাজার মানুষ। আর এদিকে আম্ফানের আঘাতে মানুষের জীবনহানিসহ বাড়িঘর ও সহায়-সম্পদ সবকিছু লন্ডভন্ড হয়ে গেছে। বিদ্যমান এই দুর্বিষহ ও দুঃখজনক পরিস্থিতি মোকাবেলা করতে মানুষকে জেগে উঠতে অভয় যোগাবে জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলামের গান ও কবিতা।

রিজভী বলেন, আজ ঈদুল ফিতরের দিনে জাতীয় কবির জন্মদিন। দু’টিই আমাদের জন্য আনন্দের, কিন্তু আমরা বর্তমান দুর্যোগে অসংখ্য ক্ষুধার্ত মানুষের দিকে তাকিয়ে ঈদের আনন্দ যেমন সেইভাবে উদযাপন করতে পারছি না, তেমনি কবির জন্মদিনের কর্মসূচিও সেভাবে পালন করা সম্ভব হচ্ছে না। তবে অনন্য শিল্পশ্রষ্টা এই সংগ্রামী কবির জীবনাদর্শ দুর্যোগ মোকাবেলার পাথেয় হোক। আমি তার বিদেহী আত্মার প্রতি গভীর শ্রদ্ধা জ্ঞাপন করছি।

অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন- জাসাস কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটির ১নং যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক জাকির হোসেন রোকন, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ইঞ্জিনিয়ার মঞ্জু মিয়া, সহ-দফতর সম্পাদক মিজানুর রহমান, সম্পাদক শামসু প্রমূখ।

এরপর সকাল সাড়ে ১০টায় ফিউচার অব বাংলাদেশের উদ্যোগে রাজধানীর শান্তিনগরে গরীব ও দুঃস্থ মানুষদের মাঝে ঈদের রান্না করা খাবার বিতরণ করা হয়। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে খাবার বিতরণ করেন বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম-মহাসচিব এ্যাডভোকেট রুহুল কবির রিজভী। তিনি ‘ফিউচার অব বাংলাদেশ’ এর কার্যক্রমকে মানবতার উজ্জ্বল উদাহরণ হিসেবে উল্লেখ করে নেতৃবৃন্দকে ধন্যবাদ জানান। এসময় ‘ফিউচার অব বাংলাদেশ’ এর নেতৃবৃন্দ যথাক্রমে শওকত আজিজ, আইনুন নিশাত, সিয়াম, তানভীর আহমেদ, জামাল হোসেন টুয়েলভ ও মিজানুর রহমান সারোয়ার। সংগঠনটি রাজধানীর ৫টি এলাকায় গরীব ও ছিন্নমূল মানুষদের মাঝে ঈদের রান্না করা খাবার বিতরণ করেন।

কেএইচ/এনএফ/এমএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]