গৃহকর্মী ছাড়া ৬ মাসের বেশি ছুটি কাটাতে পারবেন কুয়েত প্রবাসীরা

জিসান মাহমুদ
জিসান মাহমুদ জিসান মাহমুদ , লেখক ও পর্যটক, কুয়েত
প্রকাশিত: ০১:২৪ এএম, ১২ আগস্ট ২০২২

করোনা মহামারি পরবর্তীকালে কুয়েত প্রবাসীদের জীবন আরও সুন্দর ও সহজ করতে উদ্যোগ নিয়েছে সে দেশের সরকার। এখন থেকে স্টুডেন্ট ভিসা, প্রবাসী বা ডিপেনডেন্সি ভিসায় দেশটিতে অবস্থানকারীরা ছয় মাসের বেশি সময় কুয়েতের বাইরে থাকতে পারবেন। এটি ইকামা বা ওয়ার্ক পারমিটধারীদের ক্ষেত্রে প্রযোজ্য হিসেবে গণ্য হবে।

তবে কুয়েতে গৃহকর্মী ভিসায় থাকা কোনো প্রবাসী এ সুযোগ পাবেন না। এক্ষেত্রে যদি কোনো প্রবাসী গৃহকর্মী ছয় মাসের বেশি কুয়েতের বাইরে থাকেন তবে তাদের স্পনসরদের নির্ধারিত চুক্তিতে সই করতে হবে। অন্যথায় তাদের রেসিডেন্সি পারমিট বা কুয়েতে বসবাসের অনুমোদন বাতিল করা হবে। খবর কুয়েত টাইমসের।

বৈশ্বিক করোনা মহামারির কারণে দীর্ঘদিন কুয়েতের সঙ্গে বিভিন্ন দেশের বিমান চলাচল বন্ধ থাকায় দেশটিতে থাকা প্রবাসীরা ছুটি কাটাতে পারছেন না। ফলে কুয়েত সরকার এবার সেইসব প্রবাসীদের ছয় মাসের বেশি বাইরে থাকার অনুমতি দিচ্ছে।

ইকামা বা ওয়ার্ক পারমিটধারী প্রবাসীদের ছয় মাসের বেশি কুয়েতের বাইরে থাকার অনুমতি দেওয়ার সরকারি সিদ্ধান্ত এখনো বলবৎ রয়েছে। এখন পর্যন্ত এ নিয়ম বাতিল করা হয়নি। সূত্র বলেছে, শুধুমাত্র গৃহকর্মীদের ছয় মাসের বেশি কুয়েতের বাইরে থাকার অনুমতি দেওয়া হয়নি, যদি না তাদের পৃষ্ঠপোষক বা স্পনসর তাদের পক্ষে সরকারের কাছে আবেদন করে।

কুয়েতের বাইরে থাকাকালীন প্রবাসীরা তাদের রেসিডেন্সি পারমিট নবায়ন করতে পারবেন। ছয় মাস আগে চালু হওয়া প্রবাসীদের অনলাইনে তাদের ইকামা নবায়ন করার অনুমতি এখনো কার্যকর রয়েছে। গৃহকর্মী ব্যতীত ছয় মাসের বেশি কুয়েতের বাইরে থাকা প্রবাসীদের রেসিডেন্সি বাতিল করা হবে না।

কুয়েত সরকারের এ সিদ্ধান্ত পরবর্তী ঘোষণা না হওয়া পর্যন্ত বৈধ থাকবে। কোভিড মহামারি চলাকালীন আন্তর্জাতিক রুটে বিমান চালাচল বন্ধ বা সীমিত থাকায় কুয়েতের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় প্রবাসীদের জন্য এ ছাড় দিয়েছিল। বর্তমানে কুয়েত ধীরে ধীরে স্বাভাবিক অবস্থায় ফিরে এসেছে। সরকারি ও বেসরকারি খাতের প্রতিষ্ঠানগুলোও চালু রয়েছে।

এদিকে কুয়েতে ভ্রমণ ভিসা এখনো চালু হয়নি। স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় চলতি বছরের শেষ নাগাদ ফ্যামিলি ভিসা ইস্যু বন্ধ করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

মন্ত্রণালয় বলেছে, রাষ্ট্রের নিরাপত্তা ও সংসদ নির্বাচন মন্ত্রণালয়ের জন্য অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। অক্টোবরের শুরুতে নতুন নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। নির্বাচনের পর নতুন সরকার গঠন হলে ভ্রমণ ভিসা চালু হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে।

এমকেআর

প্রবাস জীবনের অভিজ্ঞতা, ভ্রমণ, গল্প-আড্ডা, আনন্দ-বেদনা, অনুভূতি, স্বদেশের স্মৃতিচারণ, রাজনৈতিক ও সাংস্কৃতিক লেখা পাঠাতে পারেন। ছবিসহ লেখা পাঠানোর ঠিকানা - [email protected]