তাহরিকে শরিয়তের প্রতিষ্ঠাতা সুফি মুহাম্মদের ইন্তেকাল

ধর্ম ডেস্ক
ধর্ম ডেস্ক ধর্ম ডেস্ক
প্রকাশিত: ১১:৪৫ এএম, ১৪ জুলাই ২০১৯

তাহরিকে শরিয়তে মুহাম্মদির প্রতিষ্ঠাতা মাওলানা সুফি মুহাম্মদ (৯২) গত বৃহস্পতিবার তার নিজ বাসভবনে বার্ধক্যজনিত কারণে ইন্তেকাল করেন। ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন।

মাওলানা সুফি মুহাম্মদ পাকিস্তানের নিষিদ্ধ সংগঠন নাফাযে তাহরিকে শরিয়তে মুহাম্মদির প্রতিষ্ঠাতা ছিলেন। ১৯৩৩ সালে পাকিস্তানের পাখতুনখোয়ায় জন্ম নেয়া সুফি মুহাম্মদ মাদ্রাসা থেকে শিক্ষা সম্পন্ন করেন।

মাওলানা সুফি মুহাম্মদ পাকিস্তান জামায়াতে ইসলামির সঙ্গে রাজনীতি শুরু করলেও জামায়াতের সঙ্গে আদর্শগত সমস্যা থাকায় তিনি দল ত্যাগ করেন এবং ১৯৯২ সালে তাহরিকে শরিয়তে মুহাম্মাদি নামে নতুন সংগঠন তৈরি করেন।

মাওলানা সুফি মুহাম্মদ পাকিস্তানের সাবেক তালেবান নেতা মোল্লা ফজলুল্লাহর চাচাতো ভাই। মোল্লা ফজলুল্লাহ গত বছর আফগানিস্তানে মার্কিন ড্রোন হামলায় নিহত হন।

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র যখন ওসামা বিন লাদেনের খোঁজে নিনেভে হামলা চালায়, সুফি মুহাম্মদ তখন আফগানিস্তান গিয়ে তালেবানের পক্ষে যুদ্ধে যোগদান করেন।

আফগানিস্তান থেকে ফিরে আসার পর পাকিস্তান সরকার ২০০৯ সালে রাষ্ট্রীয় ষড়যন্ত্রের অভিযোগে মাওলানা সুফি মুহাম্মদকে গ্রেফতার করনে। দীর্ঘ ১০ বছর কারাভোগের পর ২০১৮ সালে পেশোয়ারের উচ্চ আদালত তাকে মুক্তি দেয়।

জেল থেকে মুক্তি লাভের পর মাওলানা সুফি মুহাম্মদ কিছুদিনের জন্য লেডি রিডিং হাসপাতালে চিকিৎসা নেন। অবশেষে গত বৃহস্পতিবার তিনি তার নিজ বাসভবনে ইন্তেকাল কারেন। পারিবারিক কবরস্থানে তাকে দাফন করা হয়।

এমএমএস/জেআইএম