বোমা হামলার হুমকিতে বন্ধ করা হলো মসজিদ!

ধর্ম ডেস্ক
ধর্ম ডেস্ক ধর্ম ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৯:৫৯ এএম, ১৩ জুলাই ২০১৯

মসজিদে মসজিদে বোমা হামলার হুমকি দিয়েছে উগ্রপন্থী দুর্বৃত্তরা। সম্প্রতি এ ঘটনা ঘটেছে ইউরোপের অন্যতম প্রধান শিল্পোন্নত দেশ জার্মানিতে। দেশটির মসজিদে মসজিদে বোমা হামলার হুমকি দিয়েছে উগ্রপন্থীরা। নিরাপত্তার স্বার্থে বন্ধ করে দেয়া হয়েছে মসজিদ। খবর আনাদুলো এজেন্সি।

গত বৃহস্পতিবার দক্ষিণ জার্মানির বেভারিয়াতে মসজিদে আক্রমণের হুমকি দিয়ে মেইল পাঠানো হয়েছিল। ই-মেইল বার্তায় জার্মানির বেশি কিছু মসজিদে এ হামলা চালানোর হুমকি দেয় উগ্রপন্থীরা।

বোমা হামলার হুমকিতে বন্ধ করা হলো মসজিদ!

হামলার হুমকি দেয়া একটি ডানপন্থী সংগঠনের কিছু সদস্য জেলে বন্দি রয়েছে। তাদের মুক্তি দেয়ার আলটিমেটাম দিয়ে এ হুমকি দেয়া হয়। তারা জানায়, যদি তাদের সদস্যদের ছেড়ে দেয়া না হয় তবে মসজিদে নামাজরত মুসলিমদের ওপর হামলা চালানো হবে।

এ ই-মেইলের হুমকির কারণে জার্মানির আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী মসজিদে মসজিদে ব্যাপক সতর্কতা জারি করে এবং মসজিদে তল্লাশি চালিয়ে নিরাপত্তার কথা বলে তা বন্ধ করে দেয়।

বোমা হামলার হুমকিতে বন্ধ করা হলো মসজিদ!

ই-মেইলের তথ্য পওয়ার পর জার্মানির আইনশৃঙ্খলা বাহিনী দেশটির বিভিন্ন রাজ্যের মসজিদগুলোতেও তল্লাশি চালায়।

এখন পর্যন্ত বেশ কিছু মসজিদে পাঠানো হয়েছে হামলার হুকমির এ ই-মেইল। জার্মানির ফ্রেইমান, ওয়েস্টফলিয়ার ইসারলোন, বেভারিয়াতসহ কলোনি সিটির সবচেয়ে বড় মসজিদেও আক্রমণের হুমকি দেয়া হয়।

বোমা হামলার হুমকিতে বন্ধ করা হলো মসজিদ!

আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী বিভিন্ন মসজিদে তল্লাশি চালিয়ে সেগুলোতে ক্ষতিকর কিছুই পায়নি। নিরাপত্তার অজুহাতে জার্মান কর্তৃপক্ষ প্রশিক্ষিত কুকুর দিয়েও তল্লাশি চালায়। অতঃপর বন্ধ করে দেয়া হয় সন্দেহের শীর্ষে থাকা ৩ মসজিদ।

উল্লেখ্য যে, সম্প্রতি দেশটিতে ডানপন্থী কিছু সংগঠন মুসলিমবিরোধী ভুল তথ্য প্রচার করায় জার্মানিতে মুসলিমদের প্রতি হিংসাত্মক কাজ বেড়ে চলছে। মুসলিমদের প্রতি ঘৃণাত্মক হামলার ঘটনাও ঘটছে।

বোমা হামলার হুমকিতে বন্ধ করা হলো মসজিদ!

শুধু ২০১৮ সালেই মুসলিমদের প্রতি ৮১৩টি ঘৃণামূলক অপরাধের রেকর্ড পেয়েছে জার্মানির পুলিশ। এর মধ্যে ৫৪জন মুসলিম নাগরিকের আহত হওয়াসহ শারীরিক হেনেস্ত ও মৌখিক আক্রমন এবং ক্রমাগত হুমকি অব্যাহত ছিল।

এমএমএস/জেআইএম

আপনার মতামত লিখুন :