‘পরীমনি বাচ্চার মুখ না দেখানোর ঢংটা করেননি বলে ভালো লাগল’

জাগো নিউজ ডেস্ক
জাগো নিউজ ডেস্ক জাগো নিউজ ডেস্ক
প্রকাশিত: ০২:৪৫ পিএম, ১১ আগস্ট ২০২২

পরীমনি বাচ্চার মুখ না দেখানোর ঢংটা করেননি। কেউ কেউ লাভ চিহ্ন দিয়ে সন্তানের মুখ ঢেকে দেয়। সহজ সরল ওই নায়িকার বিষয়টি বেশ ভালো লেগেছে বিতর্কিত লেখিকা তসলিমা নাসরিনের। তবে রাজ-পরীর সন্তানের নাম পছন্দ হয়নি তসলিমার।

বৃহস্পতিবার (১১ আগস্ট) সকালে তসলিমা নাসরিন তার ভেরিফায়েড ফেসবুক পেজে শরিফুল রাজ ও চিত্রনায়িকা পরীমনির সন্তানের নাম নিয়ে একটি পোস্ট শেয়ার করেছেন।

সিনেমার নায়িকারা আজকাল একটা ঢং করে। বাচ্চার মুখ দেখাবে না, পেছন থেকে বাচ্চাকে দেখাবে। অথবা মুখটা একটা লাভ সাইন দিয়ে ঢেকে দেবে। যখন বাচ্চার মুখ দেখার জন্য লোকে অধীর আগ্রহে বসে থাকবে না, তখন, হয়তো সেটা কয়েক বছর পর, দেখাবে।

পরীমনি বাংলাদেশের সিনেমার নায়িকা। তিনি অন্য নায়িকাদের মতো বাচ্চার মুখ না দেখানোর ঢংটা করেননি বলে ভালো লাগলো। প্রথম দিনই বাচ্চার চেহারা দেখিয়ে দিয়েছেন জনগণকে। তবে স্বামীর নামের সঙ্গে মিলিয়ে বাচ্চার নাম রাখাটা বিশেষ পছন্দ হয়নি।

স্বামীট্বামীরা আজ আছে, কাল নেই। সন্তান তো চিরদিনের। পরীমনি তার নামের সঙ্গে মিলিয়ে সুন্দর একটি বাংলা নাম রাখতে পারতেন। পরী মনির জায়গায় আমি হলে ‘রাজ্য’ নয়, ডাকনাম রাখতাম ‘পরমানন্দ’। ভালো নাম ‘শাহীম মুহাম্মদ’ নয়, রাখতাম ‘পরমানন্দ প্রাণ’।

বুধবার (১০ আগস্ট) বিকেলে রাজধানীর একটি হাসপাতালে পুত্র সন্তানের জন্ম দেন নায়িকা পরীমনি। সন্তান ও মা উভয়ে সুস্থ আছেন বলে জানান পরীর স্বামী অভিনেতা শরিফুল রাজ। বৃহস্পতিবার সকালে ছেলের ছবি প্রথম প্রকাশ্যে আনেন পরীমনি। জানান নামও-শাহীম মুহাম্মদ রাজ্য।

এদিকে তসলিমার ওই পোস্টে পূরবী পারমিতা বোস নামে একজন মন্তব্য করেছেন, ‘বুবু পরীর সঙ্গে নামটা যায় তো পরী রাজ্য। ছোটবেলায় পরীরাজ্যের কথা ঠাকুরমার ঝুলির গল্পে পড়েছি।’

শুকন্তা চট্টপাধ্যয় লিখেছেন, ‘পরীমনির স্বামীটি হয়তো ভালো মানুষ তাই বাচ্চার নাম তার সঙ্গে মিলিয়ে রেখেছে। সব স্বামী কি আসামি? স্বামী আজ আছে কাল নেই কথাটা কিন্তু পুরোপুরি বাতিল করতে পারছি না।’

মোস্তাফিজুর রহমান মাসুদ লিখেছেন, ‘অধিকাংশ সময়ে হয় কি, মা-বাবার দেওয়া নামগুলো বাচ্চারা বড় হয়ে পরিবর্তন করে নিজের খুশিমত নিজের নাম দিয়ে নিজের আলাদা একটা পরিচয় বহন করে।’

‘বাচ্চারা বড় হয়ে মা বাবার দেওয়া নাম যদি পরিবর্তন করতে পারে তবে সময়ের সাথে সাথে মা বাবার ভালোবাসা, স্নেহকে ভুলেও নিজের মতাদর্শে বড় হয়। মা বাবার চাপিয়ে দেওয়া আদর্শ বহন করে না।’

মোহাম্মদ জাহাঙ্গীর আলম লিখেছেন, ‘বাংলাদেশের নায়িকারা তাদের সন্তানদের নাম খাঁটি বাংলায় না লিখলেও এদেশের কিছু ডাক্তার ও অসাম্প্রদায়িক মানুষ তাদের সন্তানদের সুন্দর বাংলা নাম রাখেন। যেমন আমার এক ফুফার সন্তানের নাম সৃজনী। সৃজনীর আবার সন্তান হয়েছে। সেই সন্তানের নাম রেখেছে সংকল্প।’

এমআরএম/জেআইএম

পাঠকপ্রিয় অনলাইন নিউজ পোর্টাল জাগোনিউজ২৪.কমে লিখতে পারেন আপনিও। লেখার বিষয় ফিচার, ভ্রমণ, লাইফস্টাইল, ক্যারিয়ার, তথ্যপ্রযুক্তি, কৃষি ও প্রকৃতি। আজই আপনার লেখাটি পাঠিয়ে দিন [email protected] ঠিকানায়।