সাইফউদ্দিনের কনকাসন তাসকিন, তৈরি হলো ইতিহাস

ক্রীড়া প্রতিবেদক ক্রীড়া প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৭:০৫ পিএম, ২৫ মে ২০২১ | আপডেট: ০১:২১ পিএম, ২৬ মে ২০২১

ব্যাটিং করার সময় হেলমেটে আঘাত পেয়েছিলেন সাইফউদ্দিন। তখনই তিনি কনকাসনের চিহ্ন দেখিয়েছিলেন ড্রেসিং রুমের উদ্দেশ্যে। যার ফলে ফিল্ডিংয়ে নামার সময় সাইফউদ্দিনের কনকাশন হিসেবে মাঠে নামানো হলো তাসকিন আহমেদকে।

একই সঙ্গে ওয়ানডে ক্রিকেটে তৈরি হয়ে গেলো ইতিহাস। এই প্রথম ওয়ানডেতে কনকাসন ব্যবহার হলো এবং সেটা বাংলাদেশের দুই ক্রিকেটার সাইফউদ্দিন এবং তাসকিন আহমেদকে দিয়ে।

বাংলাদেশ ইনিংসের ৪৭তম ওভারের খেলা চলছিল তখন। লঙ্কান পেসার দুষ্মন্তে চামিরার একটি শট বলের ডেলিভারি গিয়ে আঘাত হেনেছিল সাইফউদ্দিনের হেলমেটে। সাইফউদ্দিন হুক করার চেষ্টা করতে গিয়ে ব্যর্থ হয়েছিলেন।

যার ফলে বলটা মাথায় আঘাত হানে। তবুও মুশফিকুর রহীমের সঙ্গে একটি সিঙ্গেল নেয়ার চেষ্টা করেছিলেন তিনি। কিন্তু কুশল মেন্ডিস বল ধরে সরাসরি থ্রোতে সাইফউদ্দিনের উইকেট ভেঙে দেন এবং রান আউট হয়ে ফিরে যান তিনি।

১১ রানের মাথায় রানআউট হয়ে যান তিনি। ফিল্ডিংয়ের সময় সাইফউদ্দিনেরই ক্যাটাগরির আরেকজনকে (লাইক ফর লাইক) কনকাসন বদলি হিসেবে মাঠে নামানোর প্রয়োজন হয়। সে ক্ষেত্রে তাসকিন আহমেদই হলেন সাইফউদ্দিনের কনকাসন। এই ম্যাচে আর মাঠে নামার সুযোগ পাবেন না সাইফউদ্দিন।

তাসকিন আহমেদ প্রথম ওয়ানডের একাদশে ছিলেন। তবে ৯ ওভারে ৬২ রান দিয়ে কোনো উইকেট পাননি তিনি। তবে উইকেট এবং কন্ডিশন বিবেচনায় দ্বিতীয় ওয়ানডেতে আর তাকে একাদশে রাখা হয়নি। প্রথম ওয়ানডেতে ৮ বলে দুটি বাউন্ডারি মেরে ১৩ রানে অপরাজিত ছিলেন সাইফ। এরপর বল হাতে নিয়েছিলেন গুরুত্বপূর্ণ দুটি উইকেট।

পুরুষ ওয়ানডে ক্রিকেটে এই প্রথম কনাকসনের নিয়ম ব্যবহার করে ইতিহাসের পাতায় প্রবেশ করলেন সাইফউদ্দিন এবং তাসকিন আহমেদ। এর আগে নারী ওয়ানডে ক্রিকেটে একবার কনকাসন বদলির নিয়ম ব্যবহার করা হয়েছিল।

কনকাসন কী?
কোনো খেলোয়াড়ের মাথায় আঘাত লাগলেই সেটাকে আইসিসির নিয়মে কনাকসন বলা হয়। তখন যে ধরনের খেলোয়াড় মাথায় আঘাত পাবেন, ঠিক তার বদলি হিসেবে সেই ধরনের খেলোয়াড়কেই মাঠে নামানো যাবে। অর্থ্যাৎ ব্যাটসম্যানের পরিবর্তে ব্যাটসম্যান, পেসারের পরিবর্তে পেসার, স্পিনারের পরিবর্তে স্পিনার। আর যিনি পরিবর্তিত হিসেবে মাঠে নামবেন, তাকে বলা হয় কনকাসন সাব। তবে মাথা ছাড়া অন্য কোথাও আঘাত লাগলে সেটা কনকাসন হবে না।

২০১৯ সালের নভেম্বরে বাংলাদেশের কোনো খেলোয়াড় হিসেবে আইসিসির টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের ম্যাচে ভারতের বিপক্ষে লিটন দাস কনকাসন হিসেবে নাম লেখান। তার পরিবর্তে মাঠে নেমেছিলেন মেহেদী হাসান মিরাজ।

এসএএস/আইএইএস/

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]