সাকিব-তাসকিনদের ছক্কায় ওড়ালেন ইমরান-শামীম

বিশেষ সংবাদদাতা
বিশেষ সংবাদদাতা বিশেষ সংবাদদাতা
প্রকাশিত: ১২:২৩ পিএম, ০৮ জুন ২০২১

বৃষ্টির কারণে ২০ ওভারের ম্যাচ ছোট হয়ে আকার নিল ৬ ওভারে। আর সেই ছোট হয়ে আসা ম্যাচে ব্যাট হাতে ঝড় তুললেন প্রাইম দোলেশ্বরের ওপেনার ইমরানউজ্জামান, তার সঙ্গী শামীম হোসেনও কম যাননি।

এ দুই তরুণ ওপেনারের ঝড়ো উইলোবাজিতে বৃষ্টিভেজা স্যাতসেঁতে বিকেএসপির ৪ নম্বর মাঠ গরম। মোহামেডান বোলারদের বেধড়ক পিটিয়ে ইমরান ও শামীম প্রথম দুই ওভারেই তুলে নেন ৩৫। প্রথম উইকেটে ইমরান আর শামীম মাত্র ৩.৫ ওভারে তুলে দেন ৬৮।

ইমরান ১৪ বলে খেলেন ৪১ রানের এক অতিমানবীয় ইনিংস। যার মধ্যে ছিল ৫ বিশাল ছক্কা আর দুটি বাউন্ডারি। আর শামীম নটআউট থাকেন ২৯ রানে (১৬ বলে দুই ছক্কা আর এক বাউন্ডারিতে)।

তাসকিন আহমেদের প্রথম ওভারে ইমরান হাঁকান একটি করে ছক্কা ও চার। আর শামীম মারেন এক বাউন্ডারি। তাতে রান ওঠে ১৮। দ্বিতীয় ওভারে সাকিব দেন ১৭। সেই ওভারেও শামীম আর ইমরান একটি করে ছয়ের মার মারেন।

দোলেশ্বর ইনিংসের পঞ্চাশ পূর্ণ হয় মাত্র ২.৪ ওভারে। তবে নিজের দ্বিতীয় ও ইনিংসের ৪ নম্বর ওভারে ইমরানকে আউট করেন মোহামেডান অধিনায়ক সাকিব। তারপরও তার ২ ওভারে খরচ ২৭ রান।

প্রথম ওভারে বেদম মার খাওয়া তাসকিন আহমেদ (১ ওভারে ১৮) আর বোলিং পাননি। দ্রুতগতির বোলার রুয়েল মিয়াও সুবিধা করতে পারেননি। ২ ওভারে ১ উইকেট পেলেও এ বাঁহাতি পেসার দিয়ে বসেন ২৪ রান।

তবে ৬ ওভারের এই ম্যাচে দারুণ এক ওভার করেছেন আবু জায়েদ রাহি। পঞ্চম ওভারে এসে তিনি দেন মাত্র ৪ রান।

এআরবি/এমএমআর/

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]